জাতীয় - June 25, 2016

বর্তমানে ১২ শতাংশ মানুষ আর্সেনিক ঝুঁকিতে : পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডেস্ক :

সংসদ ভবন থেকে: বর্তমানে ১২ শতাংশ মানুষ আর্সেনিক দূষণজনিত ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

শনিবার (২৫ জুন) সকালে সংসদে চট্টগ্রাম-৪ আসনের সংসদ সদস্য দিদারুল আলমের টেবিলে উত্থাপিত প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এসব কথা জানান।

এর আগে সকাল ১০টা ৫০ মিনিটে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে দিনের কার্যসূচি শুরু হয়। অধিবেশনের শুরুতেই চলছে ২০১৬-১৭ অর্থ বছরের ওপর সাধারণ আলোচনা।

সংসদে মন্ত্রীর দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ২০০৩ সালে স্থানীয় সরকার বিভাগের জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতর সারা দেশের ২৭১টি উপজেলায় ৫০ লাখ নলকূপে আর্সেনিক পরীক্ষা করে। যার মধ্যে ১৪ দশমিক ৫ লাখ অর্থাৎ ২৯ শতাংশ নলকূপের পানিতে মাত্রাতিরিক্ত (৫০পিপিবি’র উপরে) আর্সেনিক পাওয়া গেছে।

মন্ত্রী জানান, পরবর্তীতে সরকার কর্তৃক প্রতিকারমূলক নানা ব্যবস্থা নেওয়ায় ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠীর সংখ্যা কমেছে। বর্তমানে ১২ শতাংশ মানুষ আর্সেনিক দূষণজনিত ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে।

বর্তমান প্রেক্ষাপটে পল্লী এলাকায় প্রতি ৮৮ জনের জন্য ১টি পানির উৎস নিশ্চিত করা হয়েছে। পানি সরবরাহের কভারেজ ৮২ শতাংশ থেকে ৮৮  শতাংশে উন্নীত করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন প্রকল্পের মাধ্যমে ২০০টির বেশি গ্রামকে পাইপলাইনের মাধ্যমে পানি সরবরাহ ব্যবস্থার আওতায় আনা হয়েছে। বিগত ১৫ বছরে প্রায় ৩ লাখ পানির উৎস স্থাপন করা হয়েছে। যার মধ্যে দুই লাখ ১০ হাজারটি পানির উৎস আর্সেনিক সমস্যাসংকুল এলাকায় স্থাপন করা হয়েছে। এর বাইরে ১ লাখ ৫৭ হাজার পানির উৎসের গুণগত মান পরীক্ষা করা হয়েছে। ১২২টি পৌরসভায় বিভিন্ন প্রকল্পের আওতায় পাইপ লাইন ও নলকূপের মাধ্যমে নিরাপদ পানীয় জলের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

 

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/২৫০৬২০১৬ইং/মোঃ নোমান


আরও পড়ুন