সামনে আরও এগুতে চাই : কিশোরগঞ্জের গানের পাখি ‘পিংকী’

মনি আরা, কমিউনিটি করেসপন্ডেন্ট।। 

সামনের দিকে আরও এগুতে চান কিশোরগঞ্জের তরুণী, গানের পাখি বলে খ্যাত জান্নাতুন নাঈম পিংকী। রুপে, গুনে অনন্য বাংলাদেশ বেতারের তালিকাভুক্ত ও কিশোরগঞ্জ গুরুদয়াল সরকারি কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগ থেকে এবছর অর্নাস ফাইনাল পরিক্ষার ফলাফল প্রত্যাশী এ তরুণী গত বছর ঢাকায় অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক উত্‍সবে অংশগ্রহণ করে। দেশের ৬৪ জেলা নিয়ে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে কিশোরগঞ্জের হয়ে পিংকী সেখানে অংশ নেয়।

 

আর সেখানে অল্প সময় গান গেয়েই সুরের আবেশে শ্রোতাদের মন কেড়ে নেয়। জেলায় বারবারই আবৃত্তি ও সংগীত প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থান অর্জন করা পিংকী গান ছাড়াও নিয়মিত বিভিন্ন ছড়া, চিত্র, কবিতা ও ম্যাগাজিন লেখিকা। তার লেখা অনেক ছড়াপত্র, কবিতা যা ইতোমধ্যেই বিভিন্ন দেয়ালিকায় প্রকাশিত হয়েছে।

গত ১০-০৪-২০১৭ইং সোমবার মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠের সাথে একান্ত সাক্ষাত্‍কারে জান্নাতুন নাঈম পিংকী আগামী দিনগুলোতে সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়ার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এসময় তার অতীত ও বর্তমান সম্পর্কে জানতে চাইলে পিংকী মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠকে জানান, ছোটবেলা থেকেই আমি যখন গান গাইতাম সবাই তখন থেকেই আমার কন্ঠের খুব প্রশংসা করত। আর ঠিক তখন থেকেই আমার গান শেখার সৌভাগ্য হয়নি। ২০০৭ সালে মনে দৃঢ় ইচ্ছা পোষন করে রবীন্দ্র সংগীতে ভর্তি হই জেলার শিল্পকলাত একাডেমীতে। এখান থেকে ৪ বছরের কোর্স সম্পন্ন করি ২০১০ সালে। পরবর্তীতে জেলা শিল্পকলার শ্রদ্ধেয় শিক্ষক প্রণয় কুমার দাসের কাছে তালিম নিয়েছি। সংগীত তার হৃদয়ের ক্ষুধা মেটায় উল্লেখ করে সে আরও জানায় সংগীতে শিক্ষা লাভ করে আমি নিজের ও জীবন সম্পর্কে জেনেছি। মানুষ আমার গানকে পছন্দ করে এটাই আমার প্রাপ্তি। ভবিষ্যতে আমি গান নিয়ে আরও এগুতে চাই সামনে দিকে। এজন্য সকলেই আমার জন্য দোয়া করবেন।

 

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ ডটকম/১৩ই এপ্রিল ২০১৭ইং/ নোমান 

Comments

comments

You might also like More from author

Leave A Reply

Your email address will not be published.