দরিদ্র কৃষকের শিশু কন্যা “মারজান বাঁচতে চায়”

শাহাদাত হোসাইন সাদিক, রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) সংবাদদাতা :

মানুষ মানুষের জন্য, জীবন জীবনের জন্য, একটু সহানুভূতি কি, মানুষ পেতে পারেনা। মানষিক রোগে আক্রান্ত ৬ বছরের শিশু মারজান এর চিকিৎসার ব্যয়ভার করা সম্ভব হচ্ছেনা হতদরিদ্র দিনমজুর পিতার পক্ষে। রায়পুর উপজেলার উত্তর চরবংশী ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড বাসিন্দা দিনমজুর কামাল লস্করের মেয়ে আলেয়া মারজান এর জন্মের ২ বছর পর থেকে ব্রেইনে সমস্যা দেখা দেয়। দরিদ্র পিতা তার চিকিৎসার জন্য গ্রাম্য ডাক্তার থেকে শুরু করে জেলা ও নোয়াখালী সদর পর্যন্ত চিকিৎসা করিয়ে আজ পরিশ্রান্ত। অভাব অনটনে দু’বেলা দু’মুঠো খাবার মিলছেনা তাদের। কোন রকম চলছে তাদের এ অভাবের সংসার। মেয়ের এ অবস্থা দেখে বাবা কয়েকবার স্ট্রোক করেছেন।

শিশু আলেয়া মারজানের মা ফাতেমা অশ্রুশিক্ত নয়নে সাংবাদিকদেরকে বলেন, আপনাদের মাধ্যমে “আমার শিশু মেয়েকে বাঁচাতে আমি প্রধানমন্ত্রি-সহ সকল মানুষের সহযোগীতা চাই”।

স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ী মিজান ব্যাপারী বর্তমানে শিশুটির চিকিৎসার দেখা শুনা করছেন। তিনি বলেন, সমাজের বিত্তবান ও স্ব-হৃদয়বান ব্যাক্তিদের সহযোগীতায় বেঁচে যেতে পারে একটি দরিদ্র শিশুর জীবন। আর্থিক সহযোগীতা করার জন্য ০১৭১৮৫২৬৯০৫ (বিকাশ) নাম্বারে যোগাযোগ করতে তিনি অনুরোধ জানান।

 

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/২৭-জুলাই২০১৭ইং/নোমান

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ