জামরুলের গুণাগুন!

লাইফ স্টাইল রিপোর্ট :

ক্রান্তীয় অঞ্চলের ফল জামরুল। ভারত, ইন্দোনেশিয়া, শ্রীলংকা, ফিলিপাইন, থাইল্যান্ডে প্রচুর জামরুল হয়। আমাদের দেশেও এখন বাণিজ্যিকভাবে জামরুলের চাষ হচ্ছে। সাধারণত মাঘ মাস থেকে চৈত্র মাসের মধ্যে গাছে ফুল আসে আর চৈত্র থেকে জ্যৈষ্ঠ মাসের মধ্যে পাকা জামরুল পাওয়া যায়। বর্ষায়ও ফল ধরে। বছরে দু-তিন দফায় ফল ধরে। তবে বর্ষার জামরুলের স্বাদ কম হয়। ডায়াবেটিক রোগীর জন্য খুবই উপকারি এই জামরুল।

যারা ওজন কমানোর চেষ্টায় আছেন, তারা এই ফলটিকে পথ্য হিসেবে নিতে পারেন। যতই খাবেন পেট ভরবে কিন্তু খুব বেশি মোটা হওয়ার ভয় থাকবে না।

দেখতে ছোট ফল হলেও কাজ করে সাইজে বড় ফলের সমান। এতে আছে তরমুজ ও আনারসের সমান খনিজ পদার্থ। আম ও কমলার চেয়ে তিনগুণ।

ক্যালসিয়াম ধারণের দিক থেকেও আঙুরকে হার মানিয়েছে জামরুল। একটি লিচুর সমান ক্যালসিয়াম পাবেন আপনি একটি জামরুলে।

জামরুলে আছে পেঁপে ও কাঁঠালের চেয়ে বেশি আয়রন এবং আম, কমলা ও আঙুরের চেয়ে বেশি ফসফরাস। তাই দেখতে ছোটখাটো হলেও জামরুলকে হেলাফেলায় নেয়ার কোনো কারণ নেই।

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/০৮-আগস্ট২০১৭ইং/নোমান

Comments are closed.