ভৈরবে যৌতুকের জন্য নির্যাতনের শিকার এক গৃহবধূ, দেড় মাসের শিশু সন্তান নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন

মুহাম্মদ কাইসার হামিদ, ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি :

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে যৌতুকের জন্য নির্যাতনের শিকার এক গৃহবধু দের মাসের শিশু সন্তান নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়। এ ঘটনায় স্বামী ও দুই দেবরের বিরুদ্ধে কিশোরগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে মামলা করেছে আরিফা আক্তার পুষ্প নামে ওই গৃহবধু।

মামলার এজাহার সুত্রে জানা যায়, গত ২০১৬ ইং সালের ২৪জুলাই ইসলামী শরা-শরিয়ত মতে ও রেজিস্ট্রি কাবিনমূলে উপজেলার চন্ডিবের দক্ষিন পাড়া গ্রামের জসিম উদ্দিনের পুত্র সোহাগ মিয়ার(২৭) সাথে চন্ডিবের গ্রামের রুস্তম মিয়ার কন্যা আরিফা আক্তার পুষ্প‘র(২১) বিবাহ হয়। বিয়ের পর কিছুদিন তাদের দাম্পত্য জীবন সুখেই কাটছিল। এরই মধ্যে পুষ্প‘র কোল জুড়ে আসে এক ফুট ফুটে কন্যা শিশু। নাম রাখা হয় আয়াত। কন্যা শিশু জন্ম হওয়ার পর পুষ্প‘র উপর নেমে আসে যৌতুক নামের অভিশাপ। গত ২২জুলাই শনিবার দুপুরে ৫ লক্ষ টাকা যৌতুকের দাবিতে যৌতুক লোভী স্বামী সোহাগ মিয়া (২৭) গৃহবধু আরিফা আক্তার পুষ্প কে নির্মম ভাবে নির্যাতন করে। সংবাদ পেয়ে আরিফার বাবা রুস্তম মিয়া ও মা মোছাঃ রিনা বেগম লোকজন নিয়ে সোহাগ মিয়ার বাড়িতে আসলে সোহগ মিয়া তার শ্বাশুরীকেও মারধর করে। পরে আরিফার মা ও বাবা তাকে উদ্ধার করে ভৈরব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করে।

এ ঘটনায় আরিফা আক্তার পুষ্প বাদী হয়ে ভৈরব থানায় মামলা করতে গেলে থানা পুলিশ মামলা না নেওয়ায় গত ২৪জুলাই আরিফা আক্তার পুষ্প বাদী হয়ে স্বামী সহ তিন জনকে আসামী করে কিশোরগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে একটি মামলা দায়ের করেছে। মামলা নং ৭২৯। ঘটনার পর থেকে দের মাসের শিশু সন্তার নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে পুষ্প।

 

 

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ