রাজশাহীতে ট্রেনে মহিলা যাত্রী উত্ত্যক্ত করায় দুই বখাটের দণ্ড

পাপন সরকার শুভ্র, রাজশাহী।। শুক্রবার দিবাগত রাতে ঢাকা থেকে রাজশাহী আসা পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন। ট্রেনের ঙ বগির ২৪নং সিটে বসে ছিলেন তিনি । ট্রেনটির ১৬ থেকে ১৮ নম্বর সিটে বসে ছিল ৫জন ছেলে। এরমধ্যে ২ জন ছেলে নাটোরের আব্দুলপুর ও একজন পাবনার ঈশ্বরদী স্টেশনে নেমে যায়। আর বাকি থাকেন দুই বখাটে হাসিম ও মমিনুল। তারা যাত্রা কালে এক নারী যাত্রীকে নানা ভাবে উত্যক্ত করে।

সবকিছু নিরবে মেনে নিয়ে কৌশলে মুঠোফনে পরিবারের সদস্যদের বিষয়টি জানায় সেই নারী। ততোক্ষণে দুই বখাটে কিছুই বুঝে উঠতে পারেনি। শুধু তাই নয়, দুই বখটের মনে সাহস রয়েছে তারা রাজশাহীর বাসিন্দা। কিন্তু তারা জানে না যে, সেই নারীর বাসা একদম রেলওয়ে স্টেশনের পাশেই নগরীর বোয়ালিয়া থানার শিরোইল কলোনির ৩ নম্বর গলিতে।

অবশেষে পরিবারের লোকজনের অনেক অপেক্ষার পরে রাজশাহী স্টেশনে আসলো পদ্মা ট্রেন। পরে পরিবারের সদস্য হাতে নাতে ধরে বখাটেদের রেলওয়ে থানা পুলিশের হাতে সোপর্দ করে। তারা হলেন, নগরীর বোয়ালিয়া থানার খড়বনা এলাকার মাসুদের ছেলে হাসিম ইকবাল (২১) ও রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার বাসিন্দা মমিনুল ইসলাম (২৬)।

পরে আজ শনিবার সকাল ১০টার দিকে তাদের ভ্রাম্যমাণ আদালতে হাজির করা হলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সমর কুমার পাল দুইজনকে তাদের ১৯ দিনের কারাদণ্ড প্রদান করেন।  তাদের রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/২৬-আগস্ট২০১৭ইং/নোমান

Comments are closed.