ঈদকে ঘিরে বড়পর্দায় মুক্তি পাচ্ছে তিনটি চলচ্চিত্র

নয়ন সাহা ।। এবারও ঈদে বড়পর্দার দখল নিয়েছেন শাকিব খান। মুক্তি পেতে যাওয়া তার দুটি চলচ্চিত্রের নায়িকাই বহুল আলোচিত নায়িকা বুবলি। শাহাদাৎ হোসেন লিটন পরিচালিত ‘অহংকার’ ও আবদুল মান্নান পরিচালিত ছবি ‘রংবাজ’।
অন্যদিকে এ জুটি দু’টির সঙ্গে বড়পর্দায় দর্শকমন হরণের লড়াইয়ে নামছেন জনপ্রিয় দুই নায়িকা পপি ও পরী মনি। লোককাহিনি নির্ভর ছবি ‘সোনাবন্ধু’ চলচ্চিত্রে তাদের সঙ্গে নায়ক হিসেবে আছেন ছোটপর্দার অভিনেতা ডিএ তায়েব। চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন জাহাঙ্গীর আলম সুমন।
হলদখলের লড়াইয়েও এগিয়ে শাকিব খান। এবার তার অভিনীত দু’টি দেশীয় চলচ্চিত্রের দখলেই থাকবে প্রায় আড়াইশ’ সিনেমা হল। যৌথ প্রযোজনার চলচ্চিত্র ছাড়াই এবার ঈদে সিনেমাহলগুলো জমজমাট থাকবে বলে মনে করছেন সিনেসংশ্লিষ্টরা।
উৎসবকে ঘিরে মুক্তি পাওয়া চলচ্চিত্রগুলোর জন্য সারাবছর অপেক্ষায় থাকেন হল মালিকরা। সবসময় চালু থাকা আড়াইশ’ সিনেমা হল ছাড়াও বন্ধ থাকা সিনেমা হলগুলোও চালু হয় এ সময়।
এদিকে, এক ঈদে দুই ছবির নায়িকা হিসেবে এবার বুবলির দিকে বিশেষ নজর পড়ছে দর্শকের। গতবছরও ঈদ উল আযহায় জোড়া ছবির মাধ্যমেই বড়পর্দায় অভিষেক হয়েছিলো তার। কাকতালীয়ভাবে বছর পেরিয়ে ফের দু’টি ছবি নিয়ে বড়পর্দায় হাজির হচ্ছেন বুবলি।
বিষয়টি নিয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত তিনি। গ্লিটজকে বুবলি বলেন, “ ‘রংবাজ’ ছিল ঈদুল ফিতরের ছবি। বিভিন্ন সমস্যার কারণে আটকে যায় ছবিটি। এবারের ঈদে মুক্তি দেওয়া হচ্ছে এটি। কিন্তু ‘অহংকার’ ঈদের ছবি ছিল না। দু’টি ছবি একই সময়ে মুক্তি পাওয়ায় বেশ উত্তেজনা অনুভব করছি। দুটো ছবির গল্প দুধরনের। ছবির চরিত্র ও গল্পে ভিন্নতা রয়েছে। গানগুলোও অন্যরকম। দুই ধরণের দুই বুবলিকে দেখতে পাবেন দর্শকরা। আমার বিশ্বাস দর্শকদের মন জয় করবে ছবি দুটি।”
গেল বছরগুলোতে ঈদে মুক্তিপ্রাপ্ত চলচ্চিত্রগুলোর মধ্যে দাপট দেখিয়েছে যৌথপ্রযোজনার বিগবাজেটের ছবিগুলো। ঈদ উল ফিতরে যৌথপ্রযোজনার ছবির দাপটে দেশীয় প্রয়োজনার ‘রাজনীতি’ চলচ্চিত্রটি কোণঠাসা হয়ে পড়ে। তার বিপরীতে এবার দেশীয় ছবির দাপটে পিছু হটেছে বিতর্কিত যৌথপ্রযোজনা।
প্রদর্শক সমিতির সভাপতি ইফতেখার উদ্দিন নওশাদ ঈদে মুক্তিপ্রাপ্ত চলচ্চিত্রগুলো প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, ঈদে মুক্তিপ্রাপ্ত তিনটি চলচ্চিত্রের মধ্যে ‘অহংকার’ চলচ্চিত্রটি ১১৯টি হলে, ‘রংবাজ’ চলচ্চিত্রটি ১৬২ হলে ও ‘সোনাবন্ধু’ চলচ্চিত্রটি ৪০টি সিনেমা হলে মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

 

 

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ ডটকম/০২-০৯-২০১৭ইং/ অর্থ 

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ