কিশোরগঞ্জে মহিষের গুঁতোয় নিহত ২, আহত ১০

মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম, কিশোরগঞ্জ।। কিশোরগঞ্জে ষাঁড়-মহিষের গুঁতোয় ২জন নিহত ও অন্তত ১০জন আহত হয়েছে। ২রা সেপ্টেম্বর শনিবার জেলার কটিয়াদী ও পাকুন্দিয়া উপজেলার পৃথক জায়গায় এ ঘটনা ঘটে।

স্হানীয় ও পুলিশ সূত্র জানায়, শনিবার দিবাগত রাতে কটিয়াদী উপজেলার মসূয়া ইউনিয়নের মেরাতলা গ্রামে পার্শ্ববতী মধ্যমান্দারকান্দি গ্রামের পিয়ার হোসেনের ছেলে লিটন (২৫) নিজ দোকান থেকে বের হয়ে রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় মহিষ হঠাৎ করে তাকে দৌড়াতে থাকে এবং এক পর্যায়ে শিং দিয়ে তার বুকে আঘাত করে। পরে আশংকাজনক অবস্হায় তাকে ভাগলপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। এ ঘটনায় লিটনকে বাঁচাতে এগিয়ে গেলে অন্তত আরও ১০জন আহত হন। এদের মধ্যে সুলতান ও গোলাপ নামের ২জনকে ভাগলপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

অন্যদিকে পাকুন্দিয়া উপজেলার জাঙ্গালিয়া ইউনিয়নের চরটেকিতে ষাঁড় গুঁতোয় সামসুদ্দীন মিস্ত্রী (৬০) নামের এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছেন। শনিবার বিকালে কোরবানির গোশত ঘরে রেখে বাড়িতে পালিত মহিষকে পানি খাওয়াতে গেলে ষাঁড়টি শিং দিয়ে তার বুকে আঘাত করলে ঘটনাস্হলেই তার মৃত্যু হয়।

কটিয়াদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাকির রব্বানী ও পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ সামসুদ্দীন মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

 

 

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ ডটকম/০৩-০৯-২০১৭ইং/ অর্থ

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ