ইটনায় ধনু নদীর ভাঙ্গনে বিলীন হচ্ছে তীরবর্তী এলাকা

ইটনা (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি : কিশোরগঞ্জের ইটনা উপজেলার মধ্যে দিয়ে বয়ে যাওয়া ধনু নদীর ভাঙ্গনে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। গত কয়েক বছরে নদীর তীরবর্তী ধনপুর ইউনিয়নের কামালপুর গ্রাম, বড়িবাড়ি ইউনিয়নের শিমুলবাগ গ্রামের উত্তর অংশ এরই মধ্যে নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে সদর ইউনিয়নের বেতেগা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, বেতেগা বাজার, রাজনগর গ্রাম, সদরের জেটিঘাট পাড়া।

আজ বৃহষ্পতিবার সকালে সরজমিন পরিদর্শনে দেখা যায় নদীর ব্যাপক ভাঙ্গনে বেতেগা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বেতেগা বাজারের প্রতিরক্ষা দেয়াল নদীতে বিলীন হয়েছে। প্রধান শিক্ষক দিপক রায় জানান বিদ্যালয় ও বাজারটি নদীর তীর থেকে প্রায় ১শ গজ দূরে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল সর্বনাশা ধনুনদীর ব্যাপক ভাঙ্গনে বর্তমানে বিদ্যালয়টি ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। জেটিঘাট পাড়ার বাসিন্দা অমৃত বর্মন, সজল সাহা, আঃ সালাম জানান আমাদের গ্রামটি নদীর তীর থেকে প্রায় ২শ গজ দূরে গড়ে উঠেছিল। এরই মধ্যে ১টি মাঠ সহ প্রতিরক্ষা দেয়াল নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। গ্রামবাসী বর্তমানে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছি।

এ ব্যাপারে ইউএনও মোঃ মশিউর রহমান খান জানান ঝুঁকিপূর্ণ স্থাপনা ও নদীর ভাঙ্গন রোধে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহণে স্থানীয় এমপি মহোদয় ও পানি উন্নয়ন বোর্ড সহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রনালয়কে অবহিত করা হয়েছে।

 

 

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/সেপ্টেম্বর২০১৭ইং/নোমান

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ