কিশোরকে হত্যা করে লাশ গুম

শম্ভুগঞ্জ (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি :  গত ২৫.০৯.২০১৭ ইং রোজ সোমবার আনুমানিক ভোর ৫ ঘটিকার সময়ে ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার ডৌহাখলা ইউনিয়নের চর শ্রীরামপুর গ্রামের বিশ্ব রোড সংলগ্ন গাউছিয়া মৎস্য প্রজনন কেন্দ্রে মটার চোর সন্দেহে এক কিশোরকে ধরে সাইন বোর্ডের খুঁটির সাথে হাত, পা বেঁধে গুরুতর ভাবে পিটিয়ে হত্যা করে লাশ গুম করার অভিযোগ উঠে আসে।

গোপন সূত্রে জানা গেছে- গাউছিয়া মৎস্য প্রজনন কেন্দের মালিক চর শ্রীরামপুর গ্রামের মৃত শহর আলীর পূত্র আক্কাস আলী ও পাহাড়াদার বাথুয়াদি গ্রামের বাসিন্দা আব্দুল কাইয়ুম মিলে অজ্ঞাত কিশোরকে ধরে চোর সন্দেহে খুঁটির সাথে বেঁধে পিটানো হয় সেই অবস্থাকালীন সে রক্তাক্ত ও নিস্তেজ হয়ে পড়লে তখন আশেপাশের লোকজন ছুটে আসতে থাকে। আর ছুটে আসতে দেখে এই কিশোরকে অটো রিক্সায় করে হাসপাতালের কথা বলে উদাও হয়ে যায়। এ নিয়ে এলাকায় সমালোচনার ঝড় বইছে। রহস্য উদঘাটনে পুলিশের ভূমিকা একান্ত প্রয়োজন। ঘটনার সত্যতার স্বীকার করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান শহীদুল হক সরকার।

 

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/২৫সেপ্টেম্বর২০১৭ইং/নোমান

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ