দিনাজপুরের গম গবেষনা কেন্দ্র এখন গম ও ভূট্রা গবেষনা ইনিষ্টিটিউট

অর্জুন রায়, দিনাজপুর প্রতিনিধি।। দিনাজপুরের সদর উপজেলার গম গবেষনা কেন্দ্র এখন গম ও ভূট্রা গবেষনা ইানষ্টিটিউটে রূপান্তর করা হয়েছে। গতকাল সোমবার জাতীয় সংসদে বিলটি পাশ করা হয়েছে।
গম ও ভূট্রা উৎপাদন বাড়ানোর পাশাপাশি এ বিষয়ের গবেষনার জন্য ইনিষ্টিটিউট করতে সংসদে একটি বিল পাশ হয়। এ আইনের আওত্তায় দিনাজপুর সদর উপজেলায় গম ও ভূট্রা গবেষনা ইনিষ্টিটিউট প্রধান কার্যলয় হবে।
সোমবার জাতীয় সংসদের বাংলাদেশ গম ও ভূট্রা গবেষনা ইনিষ্টিটিউট বিল-২০১৭ সংসদে বিল প্রস্তাব করেন কৃষি মন্ত্রি মতিয়া চৌধূরী। পরে বিলটি সংসদ সদস্যদের সম্মতিক্রমে পাশ হয়। এর অাগে বিলের ওপর দেওয়া বিরোধী দলের সদস্যদের জনমত যাচাই বাচাই কমিটিতে পাঠানো সংশোধনী প্রস্তাব কন্ঠভরে নাকচ করে দেয়।
পাশ করা বিলে বলা হয়েছে, গম ও ভূট্রা উন্নয়ন এবং উৎপাদন সংক্রান্ত বিষয়ে নীতিমালা প্রনয়ন ও বাস্তবায়ন এ সংক্রান্ত গবেষনা জার্ম প্লাজম সংক্রান্ত ও সংরক্ষনের সুযোগ সৃষ্টি কৃষকদের প্রশিক্ষন, প্রকল্প গ্রহন ও স্নাতোকত্তর গবেষনার ব্যাবস্থা করবে এই ইনিষ্টিটিউট। সরকার নির্ধারিত ১ জন মহাপরিচালক ইনিষ্টিটিউট বোর্ডের চেয়ারম্যান হবে আর বোর্ড হবে ১১ সদস্যের।
বিলটি হাইন হিসেবে কার্যকর হলে গম গবেষনা কেন্দ্র এখন ভূট্রা শাখা হিসেবে বিলোপ হবে।
গত ১৫ জুন বিলটি সংসদে তোলার পর বিলটি পরীক্ষা করে সংসদ প্রতিবেদনে দেবার জন্য কৃষি মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে পাঠানো হয়েছিল।

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ