নবান্নের আমেজে পিঠা তৈরির রেসিপি!

লাইফ স্টাইল রিপোর্ট : প্রকৃতির দরজায় যেন নতুন করে কড়া নাড়ছে শীত। শুরু হয়েছে নবান্নের উৎসব। নতুন চাল, নতুন গুড়ের ঘ্রাণে ম-ম হবে চারপাশ। আর বাঙালি যেন প্রতিক্ষায় রয়েছে কবে আসবে সেই শিশির ভেজা সকাল? আর ঘুম ভেঙেই হবে গরম গরম পিঠা দিয়ে সকাল বেলার নাস্তা। এই সময় ঘরে ঘরে পিঠা তৈরি হবে না তাকি করে হয়?

চলুন তবে জেনে নিনকয়েক পদের পিঠা তৈরির রেসিপি গুলোঃ

ভাপা পিঠা

উপকরণ
চালের গুঁড়া ১ কেজি, পানি আধা কাপ, গুড় আধা কেজি, নারিকেল কোরানো ১ কাপ, লবণ সামান্য।

প্রণালী
চালের গুঁড়া পানি দিয়ে ভালো করে নেড়ে বাঁশের চালনিতে চেলে নিন। অ্যালুমিনিয়াম বা মাটির পাত্রের মুখে কাপড় বেঁধে পানি ভরে চুলায় বসান। পানি ফুটে ভাপ বের হলে একটা ছোট ছাঁচে প্রথমে চালের গুঁড়া, গুড় ও কোরানো নারিকেল আবার চালের গুঁড়া দিয়ে চুলায় বসানো পাত্রের কাপড়ের ওপর ছাঁচের পিঠা ঢেলে ৫ মিনিট ভালোভাবে ঢেকে রাখুন। ঢাকনা তুলে একটা একটা করে তৈরি করতে পারবেন ভাপা পিঠা।

দুধ চিতই

উপকরণ
আতপ চালের গুড়া তিন কাপ,খেজুরের গুড় ১ কেজি, দুধ ২ লিটার, পানি ১ লিটার, পরিমান মতো লবণ, এলাচ ৪/৫ টুকরা।

প্রণালী
পাত্রে পানি ও গুড় জাল দিন। দুধ মিশিয়ে আরও ৩০ মিনিট আগুনে রাখুন।

এবার পরিমানমতো পানি চালের গুড়া ও সামান্য লবন মিশিয়ে মাঝারি ঘনত্বের গোলা বানিয়ে নিন। পিঠা গুলো তৈরি করবার জন্য মাটির খোলা বা লোহার কড়াই ব্যবহার করুন। কড়াইটি তেল দিয়ে মুছে মুছে চালের গুড়োর গোলা ঢেলে গোল গোল পিঠা তৈরি করে নিন।

এবার আগের তৈরি করা গুড়ের সিরায় পিঠাগুলো দিয়ে একবার বলক এলেই চামচ দিয়ে সাবধানে নেড়ে দিন। চুলা থেকে নামিয়ে সারা রাত এভাবেই ভিজিয়ে রেখে পরদিন সকালে পরিবেশন করুন।

মালপোয়া পিঠা

উপকরণ
আতপ চালের গুঁড়ি/পোলার চালের গুঁড়ি- ২ কাপ, চিনি- ২ কাপ, মৌরি-১/২ চা চামচ, আটা/ময়দা- ১/৩ কাপ, গুঁড়া চিনি – ১ কাপ, ডিম-১ টি, বেকিং পাউডার-১ চা চামচ, ঘি- ২ টেবিল চামচ, দুধ- ২ কাপ, পানি-১ কাপ, এলাচ-৩ টি, দারচিনি-২ টি, তেজপাতা -১ টি, তৈল-ভাজার জন্য, লবণ-পরিমাণ মতো।

প্রণালী
চালের গুঁড়ির সাথে ময়দা, গুঁড়া চিনি, লবন-পরিমাণমত, বেকিং পাউডার, ঘি, মৌরি একত্রে মিশান।

ডিম ফেটিয়ে দুধ ভালভাবে মিশান। গুঁড়ির মিশ্রণের সাথে গোলানো দুধ মসৃন করে মিশাবেন।

মৃদু আঁচে কড়াই গরম করে তৈল দিবেন। ২ টেবিল চামচ গোলা তৈলে দিন। উভয় দিক বাদামি হলে পিঠা তুলে নিন।

ভাপে পুলি

পুরের উপকরণ
নারকেল কোরানো ২ কাপ, তিল আধা কাপ, খেজুরের গুড় ১ কাপ, এলাচির গুঁড়া সিকি চা-চামচ।

প্রণালী
সব উপকরণ একসঙ্গে চুলায় দিয়ে নাড়তে হবে, চটচটে হলে নামাতে হবে।

উপকরণ
আতপ চালের গুঁড়া ২ কাপ, ময়দা ১ কাপ, লবণ আধা চা-চামচ, পানি ২ কাপ, তেল ১ টেবিল চামচ।

প্রণালী:
পানি, তেল ও লবণ চুলায় দিন। ফুটে উঠলে চালের গুঁড়া ও ময়দা দিয়ে খামির করে কিছুক্ষণ ঢেকে রাখুন। অর্ধচন্দ্রাকারে কেটে আঙুল দিয়ে চেপে চেপে পুর ভরে পিঠার মুখ বন্ধ করে নিন। স্টিমারে অথবা পানির হাঁড়ির মুখে ঝাঁজরি দিয়ে পিঠা ভাপ দিয়ে নিন। গরম গরম পরিবেশন করুন।

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/১৫-নভেম্বর২০১৭ইং/নোমান

Comments are closed.