বিশ্বের শীর্ষ ধনী অ্যামাজনের জেফ বেজস

তথ্য প্রযুক্তি রিপোর্ট : সর্বকালের শীর্ষ ধনী ব্যক্তি হিসেবে জায়গা করে নিয়েছেন অ্যামাজনের প্রধান নির্বাহী (সিইও) জেফ বেজস। বর্তমানে তার মোট সম্পদের পরিমাণ ১০৫ দশমিক ১ বিলিয়ন ডলার। এর আগে আর কোনও ব্যক্তি এই পরিমাণ সম্পদের মালিক হতে পারেননি।

ব্লুমবার্গের বিলিয়নিয়ার ট্র্যাকার জানিয়েছে, সোমবার বেজসের সম্পদ ১০৫ বিলিয়ন অতিক্রম করে। যার মধ্যে দিয়ে মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটসকে ছাড়িয়ে গেছেন তিনি। বিল গেটসের বর্তমান সম্পদের পরিমাণ ৯৩ দশমিক ৩ বিলিয়ন ডলার।

এদিকে ব্লুমবার্গ তাদের হিসাবে বেজসের ১০৫ দশমিক ১ বিলিয়ন ডলার সম্পদের কথা উল্লেখ করলেও বিলিয়নিয়ারদের সম্পদ নিয়ে কাজ করা আরেক প্রতিষ্ঠান ফোর্বস বলছে, অ্যামাজন সিইওর বর্তমান সম্পদের পরিমাণ ১০৪ দশমিক ৪ বিলিয়ন ডলার। অন্যদিকে বিল গেটসের সম্পদের পরিমাণ ৯১ দশমিক ৯ বিলিয়ন ডলার।

বেজসের মোট সম্পদের বেশিরভাগই এসেছে অ্যামাজনে থাকা তার ৭৮ দশমিক ৯ মিলিয়ন শেয়ার থেকে। সোমবার অ্যামাজনের শেয়ারের দর ১ দশমিক ৪ শতাংশ বেড়ে যায়। এতে বেজসের সম্পদও বেড়ে যায় ১ দশমিক ৪ বিলিয়ন ডলার।

গত বছরের জুলাইয়ে বিল গেটসকে পেছনে ফেলে বিশ্বের শীর্ষ ধনী হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করেন জেফ বেজস। এরপর জায়গা হারিয়ে অক্টোবরে আবারও তা পুনরুদ্ধার করেন। নভেম্বরে তার সম্পদের পরিমাণ প্রথমবারের মতো ১০০ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করে।

ব্লুমবার্গের বিশ্লেষণ বলছে, বিল গেটস যদি ব্যাপকভাবে দাতব্য কাজে অর্থ ব্যয় না করতেন তাহলে তিনিই হতেন পৃথিবীর শীর্ষ ধনী।

মাইক্রোসফট প্রতিষ্ঠাতা প্রকাশ্যে যেসব দান করেছেন তা থেকে দেখা যায়, তিনি মাইক্রোসফটের ৭০০ মিলিয়ন শেয়ার ছেড়ে দিয়েছেন। যার দাম ৬১ দশমিক ৮ বিলিয়ন ডলার। এগুলো মিলিয়ে তার সম্পদের পরিমাণ হতো ১৫০ বিলিয়ন ডলারেরও বেশি। সূত্র: সিএনএন

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ