কিশোরগঞ্জে দুই গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যা, ঘাতক আটক

মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম, কিশোরগঞ্জ।। কিশোরগঞ্জের নিকলীতে পারিবারিক কলহের জের ধরে দুই গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় ঘাতক শওকত আলীকে (৩০) আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে উপজেলার গুরুই ইউনিয়নের পশ্চিমপাড়া বড়বাংলা গ্রাম ও পূর্বপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, নিকলী উপজেলার গুরুই ইউনিয়নের বড়বাংলা গ্রামের শওকত আলীর স্ত্রী আয়শা আক্তার (২৩) ও পূর্বপাড়া গ্রামের মোস্তফা মিয়ার স্ত্রী সালমা আক্তার (৩০)।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্র জানায়, প্রায় ৩ বছর আগে উপজেলার গুরুই পশ্চিমপাড়া গ্রামের গোলাপ মুন্সীর মেয়ে আয়শা আক্তারের সঙ্গে পার্শ্ববর্তী পূর্বপাড়া গ্রামের হাজী ইসরাফিলের ছেলে ওমান প্রবাসী শওকতের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহ বিরাজ করছিল। গত ৩ দিন আগে বিদেশ থেকে দেশে ফিরে শওকত শনিবার সকালে তার গর্ভবতী স্ত্রীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। এর কিছুক্ষণ পরই পার্শ্ববর্তী পূর্বপাড়া গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে আয়শার বড় ভাবি সালমাকে হত্যা করে। এ ঘটনার পর পালিয়ে যাওয়ার সময় এলাকাবাসীর সহযোগিতায় পুলিশ ঘাতক শওকত আলীকে আটক করে।

এ ব্যাপারে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নিকলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসির উদ্দিন মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠকে জানান, নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে জেলা হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘাতক পুলিশ হেফাজতে আছে ও মামলা রুজুর প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান তিনি।

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ