বসন্তে রঙ্গিন দিনাজপুর

অর্জুন রায়, দিনাজপুর প্রতিনিধি ।। সকাল থেকে ডিপার্টম্যান্টের ক্লাশ শেষ করে বাসায় ফিরতে ফিরতে দুপুর ২ টা। ফ্রেশ হয়ে কোন রকম দুপুরের খাওয়া শেষ করে বাইরে বেড়িয়ে পরা, কারন আজ বসন্ত অর্থাৎ পহেলা ফাগুন।বঙ্গালীর প্রানের এমন একটি বড় উৎসবে একটু ঘুড়তে না যাওয়া মানে বসন্তটাকে মিস করা। কোথায় যাওয়া যায় ঝটপট ঠিক করে ফেললাম স্থান। দিনাজপুর শিশুপার্ক ঘুড়ে বটতলী মোড় হয়ে সূখ সাগরে ঘুেড়তে যাওয়া। এ যেনো এক বসন্তের অন্য রকম অনূভূতি হলুদ শাড়ী, লাশ চুড়ি, মাথায় ফুলের বাগান সাজিয়ে মনের মানুষের সাথে ঘুড়তে এসছে অনেকে।

ছেলেরাও আবার বাদ যায় কিসে মনের মানুষের হলুদ শাড়ীর সাথে মিল রেখে অনেকে আবার হলুদ পাঞ্জাবী গায়ে জড়িয়েছে। দিনাজপুর শিশুপার্ক, বড়মাঠ, সূখসাগড়, রামসাগড়, সিটি পার্ক আজকে যেনো ছেয়ে গেছে হলুদের সমারহে।

এদিকে দিনাজপুর শিশুপার্কে ঘুড়তে আসা মিহির প্রধানের সাথে কথা বললে তিনি জানান, বসন্ত বাঙ্গালীর প্রানের উৎসব এই বসন্তে গাছের পাতা যেমন ঝড়ে গিয়ে নতুন পাতার জন্ম দেয় তেমনি এই বসতে আমাদের মনকে নতুন ভাবে সাজাতে হবে যেখানে থাকবে মানুষের জন্য ভালবাসা। তিনি আরো বলেন মানুষের মনকে পরিনত করতে হবে এক একটি ফুটন্ত গোলাপে।

এদিকে দিনাজপুর জেলা শহরের কয়েকটি ফুলের দোকান ঘুড়ে দেখা যায়, বসন্ত ও ভালবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে ফুলের দাম অন্যান্য দিনের তুলনায় একটু বেশি অন্য সব দিকে গোলাপ প্রতি ১০ টাকা বিক্রি হলেও আজকে প্রতি পিচ গোলাপের দাম ৩০ থেকে ৪০ টাকা।

ফুল বিক্রেতারা জানান আগামীকাল ১৪ ফেব্রয়ারী ভালবাসা দিবস থাকয় ফুল বেচা বিক্রিটা আরো বৃদ্ধি পাবে।

 

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ