দেশের খবর - প্রচ্ছদ - আগস্ট ৩, ২০১৮

দেশের বিভিন্ন রুটে বাস চলাচল বন্ধ

শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে রাজধানীর সায়েদাবাদ থেকে দূরপাল্লার কোনো গাড়ি চলছে না। আজ শুক্রবার সকাল থেকেই রাস্তায় অবস্থান নিয়েছেন পরিবহন শ্রমিকরা।

যাত্রাবাড়ী থানার ওসি কাজী ওয়াজেদ আলী সাংবাদিকদের বলেন, পরিবহন শ্রমিকরা গাড়ি চালাবেন না। তাই সকাল থেকে তারা সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল এলাকায় রাস্তায় অবস্থান করছেন।

এ ছাড়া সড়কে নিরাপত্তা নেই, এই অজুহাতে শুক্রবার সকাল থেকে চাঁদপুর থেকে দূরপাল্লার যাত্রীবাহী বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। ফলে চাঁদপুর-ঢাকাসহ আরো বেশকিছু রুটে শ্রমিকরা বাস চলাচল বন্ধ রেখেছেন।

অপরদিকে রাজশাহী থেকে সব সড়কপথে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীরা সারা দেশে সড়কে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করছে। তাদের দাবির সঙ্গে একমত পোষণ করেছেন বাস মালিকেরা। তবে বাসের নিরাপত্তার কারণে তারা এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

তৃতীয় দিনের মতো বাস চলাচল বন্ধ রেখেছে ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতি। অবৈধ বাস টার্মিনাল বন্ধে প্রশাসনের নির্দেশের প্রতিবাদে বুধবার বিকেল থেকে আজ শুক্রবার ঝালকাঠি জেলা সড়ক বিভাগ হয়ে বরিশাল, পিরোজপুর, বাগেরহাটসহ আটটি রুটে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে।

সিরাজগঞ্জসহ বিভিন্ন জেলায় অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘট ডেকেছে মালিক-শ্রমিকদের সংগঠনগুলো। বাস, ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহন ভাংচুর ও শ্রমিকদের নিরাপত্তার দাবিতে অনির্দিষ্টকালের এই ধর্মঘট শুরু হয়েছে। আজ শুক্রবার সকাল থেকে জেলার সব রুটে যানবাহন চালানো বন্ধ রেখেছেন শ্রমিকরা।

 


আরও পড়ুন