১৪-০ গোলে পাকিস্তানকে উড়িয়ে দিল বাংলাদেশ

স্পোর্টস রিপোর্ট , মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ
আগস্ট ৯, ২০১৮ ৯:১৯ অপরাহ্ণ

সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের দ্বিতীয় আসরে উড়ন্ত সূচনা করেছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ। আজ বৃহস্পতিবার ভুটানের চাংলিমিথান স্টেডিয়ামে নিজেদের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানকে ১৪-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে মারিয়া মান্ডা-শামসুন্নাহাররা। পাশাপাশি সেমিফাইনালে এক পা দিয়ে রাখল বাংলাদেশের কিশোরী ফুটবলাররা। ১৩ আগস্ট ‘বি’ গ্রুপে নিজেদের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে নেপালের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ।

আজ ‘বি’ গ্রুপের ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথমার্ধেই ৬-০ গোলের লিড নেয় বাংলাদেশের কিশোরীরা। পাকিস্তানের কিশোরীদের বিপক্ষে একচ্ছত্র আধিপত্য বিস্তার করে খেলেছে বাংলাদেশ। ৪৫ মিনিটে একবারও বাংলাদেশের অর্ধে আক্রমণ শানাতে পারেনি পাকিস্তান। এরপর দ্বিতীয়ার্ধে আরো ৮টি গোল করে শামসুন্নাহার-মনিকা চাকমারা। ৯০ মিনিটে বাংলাদেশ অন টার্গেটে শট নেয় ৩২টি। কর্নার পায় ১২টি!

বাংলাদেশের ১৪টি গোলের ৫টি করেছেন শামসুন্নাহার (৩১, ৫০, ৫৪, ৫৭ ও ৯০ মিনিটে)। দুটি করে গোল করেছেন তহুরা খাতুন (৫ ও ১৯ মিনিটে), সাজেদা খাতুন (৪৮ ও ৫৮ মিনিটে) ও আনাই মোগিনি (৬০ ও ৮৮ মিনিটে)। ১টি করে গোল করেছেন মনিকা চাকমা (১৭ মিনিটে) ও মারিয়া মান্ডা (৩৯ মিনিটে)। দ্বিতীয়ার্ধে মাত্র ১২মিনিটে ৬টি গোল করে বাংলাদেশের মেয়েরা (৪৮ থেকে ৬০ মিনিট)। এরপর ৮৮ মিনিটে আনাই মোগিনি নিজের জোড়া গোল পূর্ণ করেন। আর ৯০ মিনিটে শামসুন্নাহার নিজের পাঁচ নম্বর গোলটি করেন। তাতে ১৪-০ ব্যবধানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে গোলাম রাব্বানী ছোটনের শিষ্যরা।

টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে ভারতের কিশোরীরা ১২-০ গোলে শ্রীলঙ্কার কিশোরীদের হারিয়েছে।

অনূর্ধ্ব-১৫ নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের দ্বিতীয় আসরে ছয়টি দল অংশ নিয়েছে। দলগুলো হল ভুটান, ভারত, বাংলাদেশ, নেপাল, পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কা। বাংলাদেশ রয়েছে ‘বি’ গ্রুপে। যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ পাকিস্তান ও নেপাল। অন্যদিকে ‘এ’ গ্রুপে রয়েছে ভারত, শ্রীলঙ্কা ও স্বাগতিক ভুটান দল। ৯ থেকে ১৩ আগস্ট পর্যন্ত হবে গ্রুপপর্বের ম্যাচগুলো। ১৬ আগস্ট হবে দুটি সেমিফাইনাল। আর ১৮ তারিখ হবে ফাইনাল ও তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচ।

২৩ সদস্যের বাংলাদেশ দল :
মাহমুদা আখতার, রুপনা চাকমা, রুপা আক্তার, আঁখি খাতুন, আনাই মগিনি, নাজমা, নিলুফা ইয়াসমিন নীলা, ইলামনি, শাহেদা আক্তার রিপা, আনুচিং মগিনি, রেহানা আক্তার, মারিয়া মান্ডা, মনিকা চাকমা, লাবনী আক্তার, তহুরা খাতুন, মুন্নী আক্তার, শামসুন্নাহার, সোহাগী কিসকু, ঋতুপর্ণা, সাজেদা, শামসুন্নাহার জুনিয়র, রোজিনা ও নওসুন।

সাফে বাংলাদেশ দলের টিম স্পন্সর হিসেবে আছে ওয়ালটন গ্রুপ। এর আগে ওয়ালটন ভারতে অনুষ্ঠিত সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশ জাতীয় নারী ফুটবল দলের পৃষ্ঠপোষকতায় ছিল।পাশাপাশি বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৬ জাতীয় নারী ফুটবল দলের জাপান, থাইল্যান্ড, সিঙ্গাপুর, চীন ও হংকং সফরেও তাদের পৃষ্ঠপোষকতায় ছিল।

Comments are closed.

LATEST NEWS