দেশের খবর - অক্টোবর ১০, ২০১৮

দুদকের হস্তক্ষেপে সিলেটে অবৈধ পাহাড় কাটা বন্ধ ও যানবাহন জব্দ

দুদকের হস্তক্ষেপে সিলেটের জালালাবাদ উপজেলাধীন কালীবাড়ি এলাকার অলদারপাড়ায় অবৈধভাবে টিলা ও পাহাড় কর্তন বন্ধ করা হয়েছে।
প্রভাবশালীরা টিলা ও পাহাড় কর্তন করে মাটি বিক্রি করছে, দুদক অভিযোগ কেন্দ্রে (হটলাইন- ১০৬) এরূপ অভিযোগ আসলে দুর্নীতি দমন কমিশনের মহাপরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরী তাৎক্ষণিকভাবে সিলেট পরিবেশ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মোহাম্মদ আলতাফ হোসেনকে অভিযান পরিচালনার নির্দেশ দেন। তাৎক্ষণিকভাবে উপপরিচালকের নেতৃত্বে একটি টিম মঙ্গলবার (০৯/১০/২০১৮)ইং উক্ত এলাকায় অভিযান চালায়।
অভিযানকারী টিম ঘটনাস্থলে পৌঁছার সাথে সাথে পাহাড় কাটার সাথে জড়িতরা পালিয়ে যায়। তবে পাহাড় কাটায় ব্যবহৃত একটি যানবাহন জব্দ করা হয় এবং পাহাড় কাটায় জড়িত একজনকে গ্রেফতার করা হয়। বিদ্যুৎ বিভাগের সহায়তায় উক্ত এলাকার বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে ফেলা হয়। তবে মূল অপরাধীকে শনাক্ত করে পরিবেশ আইনে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে। এছাড়াও পাহাড় কর্তনকারীদের ব্যবহৃত কক্ষটিকে সিলগালা করা হয়। পরিবেশ অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে পাহাড় কাটা বিরোধী জনসচেতনতামূলক স্টিকার ও লিফলেট বিতরণ করা হয়।
এ অভিযান পরিচালনা প্রসঙ্গে এনফোর্সমেন্ট অভিযানের সমন্বয়কারী দুদক মহাপরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরী বলেন, পাহাড় কাটার অপরাধের পেছনে সিন্ডিকেট ভিত্তিক দুর্নীতি আছে, যা পরিবেশের জন্য মারাত্মক বিপর্যয়। পরিবেশ ধ্বংস ও দুর্নীতি একসুত্রে গাঁথা। পরিবেশ অধিদপ্তর পরিবেশ রক্ষার ম্যান্ডেটপ্রাপ্ত, দুদক এক্ষেত্রে উক্ত অধিদপ্তরকে সহায়তা দিচ্ছে মাত্র।

আরও পড়ুন