আইন আদালত - অক্টোবর ২৩, ২০১৮ ৩:১৭ অপরাহ্ণ

ব্যারিস্টার মঈনুলের নামে ডিজিটাল আইনে মামলা হলো ময়মনসিংহে আদালতে

টেলিভিশনের টক শো’তে বসে নারী বিদ্বেষী কটুক্তি করার অভিযোগে সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে ময়মনসিংহের আদালতে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১১ টার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্টেটের ১ নং আমলী আদালতে এই মামলা দায়ের করেন। ওই আদালতের বিচারক ছিলেন, রোজিনা খান। ভালুকা উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা আ’লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা মনিরা সুলতানা মনি বাদি হয়ে মামলাটি দায়ের করেছেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, একটি বেসরকারী টেলিভিশনের টক শো’তে বসে নারী বিদ্বেষী কটুক্তি করার অভিযোগ এনে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৯/ ধারায় মামলাটি করা হয়। বাদীর পক্ষে আইনজীবী এড. পিযুষ কান্তি, রাশেদা তাহমিনা প্রীতি, শফিকুল ইসলাম ও মুসা আদালতে মামলাটি দাখিল করেন।

উল্লেখ্য, গত ১৬ অক্টোবর একাত্তর টেলিভিশনের টক শো একাত্তরের জার্নাল এ ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনকে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি প্রশ্ন করেন, আপনি বলছেন- জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে আপনি নাগরিক হিসেবে উপস্থিত থাকেন। কিন্তু সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অনেকেই বলছেন, আপনি জামায়াতের প্রতিনিধি হয়ে সেখানে উপস্থিত থাকেন।

মাসুদা ভাট্টির এই প্রশ্নে রেগে গিয়ে মইনুল হোসেন বলেন, আপনার দুঃসাহসের জন্য আপনাকে ধন্যবাদ দিচ্ছি। আপনি চরিত্রহীন বলে আমি মনে করতে চাই। আমার সঙ্গে জামায়াতের কানেকশনের কোনও প্রশ্নই নেই। আপনি যে প্রশ্ন করেছেন তা আমার জন্য অত্যন্ত বিব্রতকর।

পরে ওই বক্তব্যকে কেন্দ্র করে রবিবার সকালে ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম আসাদুজ্জামান নূরের আদালতে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি বাদী হয়ে মামলা করেন। ওই মামলায় ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত।

এরআগে এ ঘটনায় জামালপুর, কুড়িগ্রাম, কুমিল্লা ও রংপুরেও মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। তবে ঢাকা ও জামালপুরের মামলায় হাইকোর্ট থেকে আগাম জামিন পেয়েছেন তিনি।