স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে পেটানো সেই পুলিশ ক্লোজড

প্রতিনিধি , মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ
জানুয়ারি ১৪, ২০১৯ ৮:৪৭ অপরাহ্ণ

ভোলায় মোটরসাইকেলের রেজিস্ট্রেশনসহ কাগজপত্র ঠিক থাকলেও অন্যের জন্য অনুরোধ করায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে মাটিতে ফেলে পেটানো ও লাথি মারার ঘটনায় অভিযুক্ত ট্রাফিক পুলিশের এএসআই শাহে আলমকে ক্লোজড করা হয়েছে।

একই সঙ্গে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা ও তদন্ত টিম গঠন করা হয়েছে।

রোববার বিকালের ওই ঘটনার পর ভিডিওসহ সংবাদ প্রকাশের পর তোলপাড় শুরু হয়। রাতেই ওই এএসআইকে ক্লোজড করার বিষয় নিশ্চিত করেন পুলিশ সুপার মো. মোকতার হোসেন।

তিনি জানান, ঘটনা শুনেই অভিযুক্ত ব্যক্তিকে ক্লোজড করা হয়। একই সঙ্গে তদন্ত টিম গঠন করা হয়। তবে রোববার সন্ধ্যায় ভোলা থানায় বসে বিষয়টির সমঝোতা করা হয়। ওই সময় এএসআই শাহে আলম ক্ষমা চান।

আহত বোরহানউদ্দিন উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সম্পাদক আওলাদ সোমবার ভোলা প্রেসক্লাবে এসে সাংবাদিকদের জানান, জেলা শহরের বাংলা স্কুল মোড়ে মোটরসাইকেল তল্লাশির সময় তার কোনো দোষ ছিল না। তার মোটরসাইকেলের কাগজপত্র ঠিক থাকায় তাকে যেতেও বলা হয়।

তিনি আরও জানান, ওই সময় তার এক বন্ধু ছাত্রলীগ নেতার মোটরসাইকেলটি ছেড়ে দেয়ার অনুরোধ করতেই ক্ষিপ্ত হন এএসআই শাহে আলম।দু-এক কথায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আওলাদের ওপর চড়াও হন এএসআই শাহে আলম। জামা ও গলায় ধরে টেনে মাটিতে ফেলে দিয়ে লাথি মারতে থাকেন।

তবে শাহে আলম জানান, আওলাদও তার ওপর চড়াও হয়েছিলেন।

Comments are closed.

সর্বশেষ পাওয়া