দেশের খবর - January 30, 2019

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শারীরিক শিক্ষা বিষয়কে বাধ্যতামূলক করতে হবে : যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, শিক্ষার্থীদের মেধা ও শারীরিক বিকাশে খেলাধুলা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। তাই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সমূহের কোর্স কারিকুলামে শারীরিক শিক্ষা বিষয়কে বাধ্যতামূলক করতে হবে। এ বিষয়টি অধ্যয়নের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা মানব দেহের ওপর মাদকের কুফল ছাড়াও মেধা বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। এছাড়া বয়সসন্ধিকালীন বিষয় সম্পকেও কিশোর কিশোরীরা নিজেদের সচেতন করতে পারবে। এর মাধ্যমে একটি সুন্দর ভবিষ্যৎ প্রজন্ম গড়ে তোলা সম্ভব। তিনি আজ বুধবার ক্রীড়া পরিদপ্তর পরিদর্শন কালে সাংবাদিকদের সাথে আলাপ চারিতায় এসব কথা বলেন।

তিনি আরো জানান, প্রতিটি উপজেলায় যুব বিনোদন কেন্দ্র নির্মানের যে পরিকল্পনা রেয়েছে সেখানে খেলাধুলাকে বিশেষ গুরুত্ব দেয়া হবে। যার মাধ্যমে তৃণমূল পর্যায়ে খেলাধুলা বিকশিত হবে। সামগ্রিক এই উদ্যোগকে বাস্তবায়ন করারা জন্য  ক্রীড়া পরিদপ্তরকে অধিদপ্তরে রুপান্তর করে প্রতিটি উপজেলায় শক্তিশালী সাংগঠনিক কাঠামো তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে।

ক্রীড়াঅঙ্গনকে শক্তিশালী করার লক্ষে যুব এবং ক্রীড়াকে আলাদা প্রাতিষ্ঠানিক রুপদানের পরিকল্পনার কথাও জানান যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের নতুন এই প্রতিমন্ত্রী।  দায়িত্ব গ্রহণের পর প্রথমবারের মত ক্রীড়া পরিদপ্তর পরিদর্শনের সময় এসব কথা জানান জাহিদ আহসান রাসেল।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ক্রীড়া পরিদপ্তরের পরিচালক মোহাঃ মোমিনুর রহমান, যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব ওমর ফারুক সহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বৃন্দ।


আরও পড়ুন

1 Comment

  1. রাসেল ভাই,
    গত এক দশক আগেও যেমন ছিলো ঠিক তেমনি ভাবে সরকারি/রেজিস্ট্রাড/কিন্ডার গারৃটেন সহ প্রতিটি বিদ্যালয়ে পিটি প্যারেড,জাতীয় সংগীত গাওয়া,শফথ বাক্য পাঠ বাধ্যতামূলককরা হোক।
    ইদানিং লক্ষ করলে দেখি ছাত্র/ছাত্রীদের মাঝে দেশপ্রেম নামক বস্তুটি প্রায় গুরুত্বহীন।

Comments are closed.