দেশের খবর - মার্চ ২৭, ২০১৯

তাহিরপুরে এলাকাবাসীর গো-চারন ও ঈদগাহ মাঠের ভূমি বন্দোবস্ত বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন

তাহিরপুরে গো-চারন ভূমি ও ঈদগাহ মাঠ খাস ভূমি বন্দোবস্ত বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্টিত। উপজেলার দক্ষিণ শ্রীপুর ইউনিয়নের শিববাড়িতে হাওরপারে কৃষকসহ বিভিন্ন শ্রেনীপেশার লোকজন ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধনে অংশ নেন।

মানববন্ধন চলাকালে রামসিংহপুর গ্রামের কৃষক মুস্তাফিজুর রহমান খোকন বলেন, শ্রীপুর দক্ষিণ ইউনিয়নের লামাগাঁও মৌজার ৪৩৪২ নং দাগে ৬ একর ভূমি জুড়ে শতবছর পূর্ব হইতে হাওর এলাকার লোকজন এ পতিত ভূমিটি তারা গো-চারন ভূমি হিসাবেই ব্যবহার করে আসছে। আবার ঈদের জামাতের নামাজও ওখানে আদায় করা হয় এবং প্রতি বছর অষ্টমি নামে একটি মিলন মেলা হয়। এমনকি বৈশাখ মাসে এলাকাবাসীরা ধানের খলা হিসেবে ব্যবহার করে। প্রাকৃতিক দূর্যোগের সময় যখন হাওরে পানি প্রবেশ করে। তখন উঁচু স্থান হিসাবে একমাত্র আশ্রয়স্থল হিসাবে উক্ত স্থানটি তারা ব্যবহার করে থাকেন। সম্প্রতি তারা বিশ্বস্তসূত্রে জানতে পারে শ্রীপুর দক্ষিণ ইউনিয়নের হুকুমপুর গ্রামের ধনাঢ্য ব্যক্তি আব্দুল বারিকের পুত্র ফারুক মিয়া,জহুর মিয়া, মৃত আরজদ আলীর পুত্র রইছ মিয়া, আব্দুল জলিল, আবুল বাশাক ও ছামিদ আলীর পুত্র আব্দুল নিরিক এদের নামে সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসক হইতে বন্দোবস্তকৃত ভূমি অনতি অবিলম্বে বাতিলের জন্য তারা সরকারের কাছে জোড় দাবী জানান। এদিকে উক্ত ভূমি বন্দেবস্ত বাতিলের দাবীতে এলাকাবাসীর স্বাক্ষরিত একটি লিখিত অভিযোগ আজ বুধবার দুপুরে তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে দাখিল করে।

এ সময় এলাকাবাসীর পক্ষে মুক্তিযোদ্ধা মনু হোসেন বলেন, স্বাধীনতার পর থেকেই আমাদে এলাকার সন্তারা মাটে খেলাদুলা করে থাকে, জগৎ তালুকদার বলেন এই জায়গাটিতে আমরা গৃহ পালিত গরু ছড়াই , একই গ্রামের তারা মিয়া বলেন এই মাটেই আমরা ঈদেও নাময আদায় করি এবং আমরা এলাকাবাসীর এই মাঠ ছাড়া অন্য কোন জায়গা নেই তাই এই স্থানের বন্দোবস্ত বাতিল চাই।


আরও পড়ুন