ইটনা - মে ৩, ২০১৯

ইটনায় বাল্য বিবাহ থেকে রক্ষা পেল অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রী

কিশোরগঞ্জের ইটনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) সাইফুল ইসলামের হস্তক্ষেপে বাল্য বিবাহ বন্ধ, রক্ষা পেল লায়লা তুল কাদেরী (১৬) নামের অষ্টম শ্রেণীর এক ছাত্রী।

জানাযায়, শুক্রবার বাদ জুমায় জয়সিদ্ধী উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী ও রায়হাটি গ্রামের নান্নু মিয়ার মেয়ে লায়লা তুল কাদেরী ও একই গ্রামের আব্দুল হাসিমের ছেলে সাফাই মিয়ার বিবাহের আয়োজন চলছিল। খবর পেয়ে ইউএনও সাইফুল ইসলাম ইটনা থানার এসআই আমজাদ হোসেনকে বিবাহ বন্ধ করার নির্দেশ দেন। এসআই আমজাদ হোসেন সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে পৌঁছে দুই পরিবারকে বাল্যবিবাহের কুফল বর্ননা করলে উভয় পক্ষ বিবাহ ভেঙ্গে দেন এবং ১৮ বছরের পূর্বে বিবাহের আয়োজন করবে না মর্মে উভয় পক্ষ মুচলেখা প্রদান করে।

এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সহকারী ইউনিয়ন ভূমি অফিসার পার্বতী রাণী রায়, জয়সিদ্ধী ইউনিয়ন উদ্যেক্তা বিল্পব রায় বিজয় সহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যাক্তি বর্গ।


আরও পড়ুন