হোসেনপুর - জুলাই ১৫, ২০১৯

হোসেনপুরে রাস্তা বিহীন প্রাথমিক স্কুল শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি

হোসেনপুর উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ মাধখলা গ্রামে ৪৮নং দক্ষিণ মাধখলা এ আর খাঁন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়টি ১৯৯৩ সনে প্রতিষ্ঠিত হয়। গ্রামের হতদরিদ্র পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীকে শিক্ষার আলো পৌঁছাতে দক্ষিণ মাধখলা গ্রামের মরহুম আব্দুর রাশিদ খাঁন স্কুলের নামে জমি দান করেন। ২০১৩ সালে স্কুলটি জাতীয়করন করা হয়। বর্তমানে শিশু শ্রেণি থেকে পঞ্চম শ্রেণির মধ্যে প্রায় দুই শতাধিক কোমলমতি শিশুরা পড়াশোনা করছে। স্কুলের আশেপাশে অর্ধশতাধিক দরিদ্র পরিবার বসবাস করায় রাস্তা নির্মানে কেউ আগ্রহ দেখাচ্ছেনা। ফলে রাস্তা বিহীন দক্ষিণ মাধখলা এ আর খাঁন সরকারী প্রাথমিক স্কুলে যাতায়াতের জন্য শিশুদের চরম ভোগান্তির সৃষ্টি হচ্ছে। শিক্ষার্থীরা স্কুলে যাতায়াতের রাস্তা না থাকায় বর্ষার মৌসুমে কাদামাটি যুক্ত জমির সরু আইল দিয়ে গন্তব্যে পৌছাতে হয়।

বিদ্যালযের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী রাদিয়া খাতুন জানান, রাস্তা না থাকায় স্কুলে যেতে ইচ্ছা হয় না।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মালেক খাঁন জানান, কোমলমতি শিক্ষার্থীদের কথা বিবেচনা করে জরুরী ভাবে রাস্তা নির্মান করা প্রয়োজন। তিনি আরো জানান, কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসকের নিকট স্কুলের রাস্তা নির্মানের জন্য লিখিত ভাবে আবেদন করলে হোসেনপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে তদন্তের নির্দেশ দিলেও তা আজও আলোর মুখ দেখেনি।

উপজেলার প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) মোঃ সাদিকুর রহমান জানান, স্কুল ম্যানেজিং কমিটি ও এলাকাবাসীকে নিয়ে অচিরেই রাস্তা নির্মানের ব্যাপারে উদ্যোগ গ্রহন করা হবে।


আরও পড়ুন