দেশের খবর - জুলাই ১৬, ২০১৯

ভারী বৃষ্টিতে আদিতমারীর বিভিন্ন এলাকায় রাস্তার বেহালদশা

আদিতমারী (লালমনিরহাট) সংবাদদাতা ।। দীর্ঘদিন প্রচন্ড খড়ার পর ৫/৭/১৯ইং শনিবার বিকেলে হঠাৎ করেই শুরু হয় মশুল ধারে বৃষ্টি। কয়েকদিনের ভারী বৃষ্টিতে আদিতমারীর বিভিন্ন এলাকায় রাস্তার বেহালদশার সৃষ্টি হয়েছে। শিমুলতলা ভাটার মোড় থেকে ময়নারচওড়া ফক্করেরহাট সংলগ্ন প্রায় দুই কিঃমিঃ রাস্তাটির মাঝে এক কিলোমিটার রাস্তাই কাদা পানী আর পিচ্ছিল্লময়ে পরিপূর্ণ। পায়ে হেটে পথচারী সহ ছোট ছোট যানবাহন গুলো চলাচলের দূর্ভোগ ভোগান্তি আর ব্যাঘাত সৃষ্টি হয়েছে। এলাবাসী রাস্তাটিতে বর্তমানে হাট বাজার কিংবা দুরদুরান্তে চলাচল করছে চরম ভোগান্তিতে পরে।

এদিকে দুলালীবাজারের পাকা রাস্তার মোড় হতে বারঘড়ি পর্যন্ত দুই কিলোমিটার রাস্তার একেবারেই বেহালদশার সৃষ্টি হয়েছে। রাস্তাটির মাঝে কিছু কিছু স্থানে কাদা পানীতে এমন পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে পথচারী কিংবা যানবাহন একেবারেই চলারমত নয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, প্রায় দীর্ঘদিন ধরে রাস্তাটি ভাংগাচোড়া আর ছোট-বড় অসংখ্য গর্তে পরিপূর্ণ এবং বিশেষ করে চলতি বর্ষায় বৃষ্টিতে কাদা পানীতে একাকার হয়ে যায়।রাস্তাটিতে গ্রামবাসীদের বর্তমানে চলাচলের দূর্ভোগ সৃষ্টি হয়েছে।

উল্লেখিত এলাকাবাসীদের অনেকেই জানায়, রাস্তাটি পাকাকরনের অনেক প্রতিশ্রুতি দীর্ঘদিন ধরে বুকে নিয়ে পাকা রাস্তার পরিবর্তে কাদা রাস্তা দিয়ে চলতে হচ্ছে শহর বন্দর হাট বাজারে এবং স্কুল কলেজ সহ অনেক দুরদুরান্তে।

সরেজমিনে দেখা যায়, মরহুম প্রাক্তন চেয়ারম্যান সোবহান আলীর বাড়ীর মোড় থেকে দুলালী বালাটারী গামী ১কিলোমিটার রাস্তা সহ কয়েকটি রাস্তা কাদা পানীতে পরিপূর্ণ আর বেহালদশা এবং কয়েকদিনের ভারী বৃষ্টিতে পানী বৃদ্ধি পেয়ে বিভিন্ন খাল বিল ভরে একেবারেই পরিপূর্ণ অবস্থা ধারন করেছে। বর্তমানে সিমান্ত রাস্তাসহ এদিকে দুলালী থেকে লোহাকুচি গামী রাস্তাটিতে পানী ছুঁই ছুঁই হয়েছে। এমনকি নিচু স্থানের অনেক ঘর বাড়ীর উঠান পর্যন্ত পানী উঠেছে। 

শুরু হওয়া কয়েকদিনের ভারী বৃষ্টিতে আদিতমারীর বিভিন্ন এলাকার রাস্তাসহ উপরোল্লিখিত অবস্থা দেখতে পাওয়া যায়।


আরও পড়ুন