আন্তর্জাতিক - প্রচ্ছদ - আগস্ট ১৭, ২০১৯

কাশ্মীর নিয়ে ফলাফল ছাড়াই নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠক শেষ

জম্মু কাশ্মীর নিয়ে ভারতের সিদ্ধান্তের ব্যাপারে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের রুদ্ধদ্বার বৈঠক কোনো ফলাফল ছাড়াই শুক্রবার শেষ হয়েছে। এই বৈঠক থেকে সংস্থার সর্বনিম্ম পর্যায়ের পদক্ষেপ-যৌথ বিবৃতি, সেটিও আসেনি। চীনের অনুরোধে কাশ্মীর ইস্যুতে শুক্রবার রুদ্ধদ্বার বৈঠক করতে সম্মত হয়েছিল নিরাপত্তা পরিষদ।

সিএনএন বলেছে, ক্ষমতাধর দেশগুলোর বিভক্তির জের ধরে বিশ্বের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা নিরাপত্তা পরিষদ শেষ পর্যন্ত কাশ্মীর প্রসঙ্গে নিস্ক্রিয় ভূমিকা পালনের সিদ্ধান্ত নিলো।

জাতিসংঘের কূটনীতিকরা জানিয়েছেন, সদস্য দেশগুলো বিবৃতিতে ব্যবহৃতব্য শব্দ নিয়ে ভিন্নমত পোষণ করেছিলেন। কারো কারো আশঙ্কা ছিল, কাশ্মীর নিয়ে যে কোনো ধরণের মন্তব্য উত্তেজনা বাড়িয়ে দেবে।

ফ্রান্স, জার্মিানি ও যুক্তরাষ্ট্র বিবৃতির শব্দচয়নের ব্যাপারে দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেছে, এটি বড় আকারের ইস্যু হয়ে যেতে পারে, যার ফলে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে ভবিষ্যত দ্বিপাক্ষিক আলোচনার সম্ভাবনাকে ব্যর্থ করে দেবে।

জাতিসংঘের আরেক কূটনীতিক বলেছেন, ‘অবশ্যই দ্বিপাক্ষিক সংলাপের ওপর গুরুত্ব দিতে হবে।’

বৈঠকের পর  চীনের রাষ্ট্রদূত জুন ঝাং সাংবাদিকদের বলেছেন, পরিষদের সদস্যরা সাধারণত মনে করে কাশ্মীর নিয়ে ভারত ও পাকিস্তানের যে কোনো ধরণের একতরফা পদক্ষেপ নেওয়া বন্ধ করা উচিৎ।

বৈঠকে ভারত বা পাকিস্তান কারোরই উপস্থিত থাকার অনুমতি ছিল না। তবে বৈঠক শেষে দুই দেশের প্রতিনিধিরাই সাংবাদিকদের সামনে তপ্ত বাক্যবিনিময়ে জড়িয়ে পড়েন।

পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত মালিহা লোধি বলেছেন, ‘কাশ্মীরী জনগণের কণ্ঠ, দখলকৃত কাশ্মীরী জনগণের কণ্ঠ আজ বিশ্বের সবচেয়ে বড় কূটনীতিক ফোরাম শুনেছে।’

আর  ভারতের রাষ্ট্রদূত সৈয়দ আকবর উদ্দিন বলেছেন, ‘এটা পুরোপুরি ভারতের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার। আমাদের আন্তর্জাতিক কোনো ব্যস্ত সংস্থার প্রয়োজন নেই।’


আরও পড়ুন