রাজশাহীতে তাবলীগের দলকে অচেতন করে লুট

রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার কেশরহাট পৌর এলাকায় অচেতন অবস্থায় তাবলীগ জামায়াতের ১৩ সদস্যকে উদ্ধার করা হয়েছে। আজ বুধবার সকালে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অচেতন করে টাকা ও মোবাইল নিয়ে পালিয়েছে আরেক সদস্য। পৌরসভার টিলাহাটি দক্ষিনপাড়া জামে মসজিদে এ ঘটনা ঘটে।

মঙ্গলবার রাতে খাবারের ডালের সাথে চেতনানাশক পাউডার মিশিয়ে খাওয়ানো হয়। এতে তারা অচেতন হয়। তবে চিকিৎসকরা সেখানে গিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে জানিয়েছেন, অজ্ঞানের শিকার তাবলীগ জামায়াতের ১৯ সদস্য এখন সুস্থ আছেন। ঘুম কেটে গেলেই তারা স্বাভাবিক হয়ে যাবেন।

মোহনপুর থানার ওসি মোস্তাক জানায়, গতকাল রাতেই তাবলীগের তাদের সাথে এক সঙ্গী রাতের খাবারে ডালের সঙ্গে চেতনানাশক পাউডার মিশিয়ে খাওয়ালে তারা অচেতন হয়ে পড়েন। সকালে ঘুম থেকে উঠতে দেরি হলে স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। খবর পেয়ে স্থানীয় পৌরসভার মেয়র, পুলিশ ও চিকিৎসকরা ওই মসজিদে গিয়ে তাদের ঘুম থেকে তোলেন। পরে তাদের পরীক্ষা অচেতন হবার ওষুধের বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যায়য়।

ওসি বলেন, ১৪ জনের তাবলিগ জামায়াতের একটি টিম এ মসজিদে এসেছিল। অচেতন করার পর তাদের কাছ থেকে নগদ সাড়ে পাঁচ হাজার টাকা ও পাঁচটি মোবাইল সেট নিয়ে রাসেল নামের এক তাবলীগ জামায়াতের সদস্য পালিয়ে যায় বলে ওসি জানান।


আরও পড়ুন