রাজনীতি - 4 weeks ago

ছাত্ররাজনীতির নামে অপকর্মকারীদের আইনের আওতায় আনা হবে : কাদের

মাদক, জুয়া ও টেন্ডারবাজী, দুর্নীতি ও সন্ত্রাসী এবং চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে দলে শুদ্ধি অভিযান চলছে বলে জানিয়েছেন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। রোববার দুপুরে রাজশাহী জেলা শিল্প কলা একাডেমীতে আ’লীগের বিভাগীয় প্রতিনিধি সভায় এ কথা বলেন তিনি। 

ওবায়দুল কাদের বলেন, সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, দুর্নীতিবাজ-টেন্ডারবাজরা সাবধান। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে দলের মধ্যে শুদ্ধি অভিযান চলছে। মাদক, জুয়া, টেন্ডারবাজী, দুর্নীতিসহ সবধরণের অপকর্মের বিরুদ্ধে এই শুদ্ধি অভিযান। পর্যায়ক্রমে সবখানে এই অভিযান চালানো হবে। 

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ ছাত্র রাজনীতি বন্ধের পক্ষে নয়। তিনি বলেন, যারা ছাত্র রাজনীতির নামে অপকর্ম করবে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। রাজনীতিবীদদের অধিকাংশেরই হাতে খড়ি ছাত্র রাজনীতি থেকে। কাজেই মাথা ব্যাথা হলে মাথা কেটে ফেলা সমাধান নয়। যুবলীগের চেয়ারম্যান প্রসঙ্গে আ: লীগের এই নেতা বলেন, চেয়ারম্যান নজরদারিতে আছে কিনা তা পরে জানা যাবে। তিনি আত্মগোপনে নেই। তবে যুবলীগের নেতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আছে। তারা নজরদারিতে আছেন। 

আ’লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মদ নাসিমের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবীর নানক, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এমপি, উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য প্রফেসর ড. সাইদুর রহমান খান, কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা: রোকেয়া সুলতানা, প্রফেসর মেরিনা জাহান, আ’লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও রাজশাহী মহানগর আ’লীগের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। আরো উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী-১ আসনের সংসদ সদস্য ওমর ফারুক চৌধুরী, রাজশাহী-৩ আসনের সংসদ সদস্য আয়েন উদ্দীন, রাজশাহী-৪ আসনের সংসদ সদস্য ইঞ্জি: এনামুল হক।


আরও পড়ুন