রাজশাহীতে আওয়ামী লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ১

রাজশাহীতে আওয়ামী লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে ১ যুবলীগ সদস্য মারা গেছে। বুধবার সন্ধা সাড়ে ৬ টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে অস্ত্র পাচারের সময় অপারেশন থিয়েটারে রাসেলের মৃত্যু হয়।

জানা যায়, রাজশাহী রেল ভবনে টেন্ডার নিয়ন্ত্রণকে কেন্দ্র করে বুধবার দুপুর দুইটার দিকে স্থানীয় আওয়ামী লীগের রাজা গ্রুপ ও সুজন গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এতে দুই গ্রুপের ৫ কর্মী আহত হন।

এ ঘটনায় বোয়ালিয়া থানা আওয়ামী লীগের (পূর্ব) সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন রাজা এবং তার ভাই রাসেল গুরুতর আহত হন। তাদেরকে ছুরিকাঘাত করা হয়। পরে তাদেরকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রামেকের ৪ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যা ৬টার দিকে রাসেলের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় আওয়ামী লীগ কর্মী সুজন গ্রুপের অন্তত ২ জন আহত হয়। তাদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। সুজন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের সাবেক প্যানেল মেয়র নিজামুল আজিম গ্রুপের কর্মী।

নগরীর চন্দ্রিমা থানার অফিসার ইনচার্জ গোলাম মোস্তফা বলেন, টেন্ডার নিয়ন্ত্রণকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়। এতে রাসেলসহ কয়েকজন আহত হয়। আহত তিনজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাসেলের মৃত্যু হয়। লাশ মর্গে রয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে হস্তান্তর করা হবে। এ বিষয়ে থানায় এখনো কোন মামলা হয়নি। আইন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আরও পড়ুন