ভিপি নুরের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সহ-সভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুরের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকালে ঢাকা সিএমএম আদালতে মামলাটি করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সলিমুল্লাহ মুসলিম হল ছাত্র সংসদের ভিপি মুজাহিদ কামাল উদ্দিন।

বাদীর আইনজীবী অ্যাডভোকেট এ কে এম এনামুল হক রুপম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, ঢাকা মহানগর হাকিম জিয়াউর রহমান বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ করে আদেশ পরে দিবেন বলে জানিয়েছেন।

মামলায় বলা হয়, ‘ভিপি নুরুল হক তার পদটিকে ব্যবহার করে বিভিন্ন ধরনের টেন্ডারবাজি, চাঁদাবাজি, অনৈতিক তদবির বাণিজ্য ও অর্থ লেনদেনে জড়িয়ে পড়েন। গত ৫ ডিসেম্বর দৈনিক পত্রিকার মাধ্যমে তা জানতে পারি। নুরের এসব কর্মকাণ্ড ঢাবির ইতিহাস ও সুনামকে নষ্ট করেছে। তিনি ভিপির পদটিকে কলঙ্কিত করেছেন।’

সম্প্রতি ডাকসুর ভিপি নুরের ফোনালাপ নিয়ে একাধিক সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশ হয়। সেখানে দেখা যায়, তিনি ভিপি পদের প্রভাব খাটিয়ে ১৩ কোটি টাকা গ্রহণ করেছেন। যার কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) বাদীসহ নির্বাচিত সবার মানহানি ঘটিয়েছেন।

এই বিষয়ে ভিপি নুরের দাবি, ওই সংবাদমাধ্যমগুলোতে প্রচারিত ফোনালাপ তার কয়েকটি ফোনালাপের মিশ্রণ, যা উদ্দেশ্যমূলকভাবে একটি মহল করেছে। প্রকৃতপক্ষে ফোনালাপটি ছিল তার এক খালার কাজের যেটি ব্যাংক গ্যারান্টি করিয়ে দেওয়া নিয়ে। সেখানে কোনো প্রভাব বা দুর্নীতির বিষয় নেই।

এর আগে একই ঘটনা নিয়ে গত ৬ ডিসেম্বর সংবাদ সম্মেলন করে নুরের পদত্যাগ দাবি করেছেন ডাকসুর সাধারণ সম্পাদক (জিএস) গোলাম রাব্বানীসহ ২৩ জন।


আরও পড়ুন