১৬ লক্ষ টাকার ঘর পাবেন মুক্তিযোদ্ধারা : মন্ত্রী

প্রত্যেক মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য ১৬ লক্ষ টাকা ব্যয়ে একটি করে ঘর নির্মাণ করে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজ্জাম্মেল হক। তিনি বলেন, সেই লক্ষ্যে এরইমধ্যে মন্ত্রণালয়কে দুই হাজার তিনশ কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছে সরকার।

মঙ্গলবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে কিশোরগঞ্জের নিকলীতে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনের উদ্বোধন শেষে জেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামে এক মতবিনিময় সভায় মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

রাজাকারের তালিকা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, একটি মহল ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে চাচ্ছে। এতে কোনো লাভ হবে না। রাজাকারদের তালিকায় ভুল হয়েছে। আর যেন ভুল না হয়, সেজন্য পুনরায় রাজাকারদের তালিকা করা হবে।

মন্ত্রী আরও বলেন, আগে যারা বিসিএস দিতো, এখন আর সেই নিয়ম থাকবে না। বর্তমানে পরীক্ষায় ১৯৪৬ থেকে ১৯৭০ সাল পর্যন্ত ইতিহাসের ওপর ৫০ নম্বর এবং ১৯৭১ সালের ওপর লিখিত পরীক্ষায় ৫০ নম্বর থাকবে।

বাজিতপুর-নিকলী আসনের সংসদ সদস্য মো. আফজাল হোসেনের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জিল্লুর রহমান, কিশোরগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট কামরুল আহসান শাহজাহান, কিশোরগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট এম এ আফজল, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু সাঈদ ইমাম, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আসাদুল্লাহ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

এ সময় কিশোরগঞ্জের জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী, পুলিশ সুপার (এসপি) মো. মাশরুকুর রহমান খালেদসহ প্রশাসনের উধ্বর্তন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

একইদিন বিকেল ৩টায় মন্ত্রী বাজিতপুর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনেরও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।


আরও পড়ুন