দেশের খবর - January 26, 2020

ডোমারে প্রতিপক্ষের ভয়ে নিজ জমিতে যেতে পারছেনা কৃষক ক্যাম্পোনাথ

জমির সীমানা নিয়ে মারপিটের ঘটনায় প্রতিপক্ষের ভয়ে নিজ জমিতে চাষাবাদের জন্য যাইতে পারছেনা কৃষক ক্যাম্পোনাথের পরিবার। ঘটনাটি ঘটেছে নীলফামারীর ডোমার উপজেলার হরিণচড়া ইউনিয়নের আঠিয়াবাড়ী মাধবপাড়া গ্রামে।

সরেজমিনে গিয়ে জানাযায়, গত ১০ জানুয়ারী উপজেলার হরিনচড়া ইউনিয়নের আটিয়াবাড়ী মাধবপাড়া গ্রামের কৃষক ক্যাম্পোনাথ রায়ের নিজ দখলীয় জমিতে হলুদ তুলতে গেলে তার ক্ষেত সংলগ্ন জমির মালিক মৃত শরৎ চন্দ্রের ছেলে নগেন চন্দ্র, সুকুমার চন্দ্র, অভয় চন্দ্র, অভয় চন্দ্রের ছেলে সনাতন রায়, নগেন চন্দ্রের স্ত্রী সুমিত্রা রানী, সুকুমার রায়ের স্ত্রী পানতি রানী, সনাতন রায়ের স্ত্রী অনিতা রানীর সাথে ঝগড়ার এক পর্যায়ে ক্যাম্পোনাথকে মারধর করলে কেম্পোনাথের মা ননীবালা ও ছোট ভাই সুন্দরের স্ত্রী জোসনা রানী এগিয়ে আসলে তাদেরকে বেধড়ক মারপিট ও রক্তাক্ত জখম করে। পরে এলাকাবাসী ক্যাম্পোনাথ, ননীবালা ও জোসনা রানীকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে ডোমার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করিয়ে দেয়। ক্যাম্পোনাথ প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে ১৩ জানুয়ারী নগেন চন্দ্র গংদের আসামী করে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার বাদী ক্যাম্পোনাথ জানান, আদালতে মামলা করার পর থেকেই বিবাদীগন আমাদের মামলা তুলে নেয়ার জন্য বিভিন্ন ভাবে ভয়ভীতি প্রদর্শন করছে। তাদের ভয়ে আমরা বাড়ী থেকে বের হতে পারছিনা।

পিটিশন মামলাটি আদালত থেকে ডোমার থানায় তদন্তের জন্য পাঠালে তদন্তকারী কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) বিশ্বদেব রায় জানান, আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। মামলাটি তদন্তধীন আছে।


আরও পড়ুন