কিশোরগঞ্জে জাতীয় গ্রন্থাগার দিবস উদযাপিত

কিশোরগঞ্জে জাতীয় গ্রন্থাগার দিবস ২০২০ উদযাপিত হয়েছে। ‘পড়ব বই গড়ব দেশ বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ’ এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জেলা প্রশাসন ও জেলা সরকারী গণগ্রন্থাগারের আয়োজনে আলোচনাসভা, র‌্যালি, শ্রেষ্ঠ গ্রন্থাগারদেরকে সম্মাননা ও পুরস্কার প্রদান করা হয়।

বুধবার সকাল ১০ টায় জেলা প্রশাসকের ককার্যালয় থেকে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের হয়ে জেলা সরকারী গণগ্রন্থাগারে গিয়ে আলোচনাসভায় মিলিতহয়।

আলোরমেলাস্থ সরকারী গণগ্রন্থাগার অডিটরিয়ামে গণগ্রন্থাগারের লাইব্রেরিয়ান আজিজুল হকের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা শিক্ষা অফিসার জুলফিকার হোসেন, অতিরিক্তি পুলিশ সুপার অনির্বাণ চৌধুরী, বীরমুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক আইয়ুব বিন হায়দার, সমকালের কিশোরগঞ্জ অফিস প্রধান সাইফুল হক মোল্লা দুলু, দৈনিক সংবাদের জেলা প্রতিনিধি মোস্তফা কামাল, কিশোরগঞ্জ বেসরকারী গণগ্রন্থাগার সভাপতি রুহুল আমিন, কিশোরগঞ্জ সরকারী মহিলা কলেজের অধ্যাপক সাকিল সরকার।

জেলা কালেক্টরেট লাইব্রেরির লাইব্রেরিয়ান মোঃ সারওয়ার আহমেদ খানের উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন, সহকারী অধ্যাপক সামিউল হক মোল্লা, শিক্ষক বিপ্লব মোহন চৌধুরী, মহিনন্দ ইতিহাস ঐতিহ্য সংরক্ষণ পাঠাগারের সভাপতি আমিনুল হক সাদী, নিরিবিলি গ্রন্থাগারের সাজ্জাদ হোসেন সঞ্জু, শিক্ষার্থী পিংকি আক্তার প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে জাতীয় গ্রন্থাগার দিবস উপলক্ষে জেলার ৭টি গ্রন্থাগারকে সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে। সম্মাননা প্রাপ্ত কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার মহিনন্দ ইতিহাস ঐতিহ্য সংরক্ষণ পাঠাগার, ফরিদা মাহমুদ ঝর্ণা পাঠাগার, অষ্ট্রগ্রামের গ্রন্থাগারগুলো হলো স্বপ্নীল গণগ্রন্থাগার, পাকুন্দিয়ার হাজী আব্দুল খালেক স্মৃতি পাঠাগার, পাটুয়াভাঙ্গা পাবলিক লাইব্রেরি, করিমগঞ্জের সৃষ্টি সাংস্কৃতিক কেন্দ্র ও গ্রন্থাগার। এছাড়াও মহান বিজয় দিবস ২০১৯ সালের রচনা প্রতিযোগীসহ বিভিন্ন প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার প্রদান , বই পাঠ, সেরা পাঠক, পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

এ সময় প্রশাসনের কর্মকর্তাবৃন্দ, জেলা সরকারী গণগ্রন্থাগারের কর্মকর্তা কর্মচারী, বেসরকারী গণগ্রন্থাগারের প্রতিনিধিগণ, জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক শিক্ষার্থী, সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন।


আরও পড়ুন