নিরাপদ সড়ক চাই কর্মী রফিক আর নেই

কিশোরগঞ্জ শহরের অন্যতম ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গৌরাঙ্গবাজার এলাকার সুগন্ধা ডিপার্টমেন্টাল স্টোরের পরিচালক, নিরাপদ সড়ক চাই কিশোরগঞ্জ জেলা শাখার সাবেক সাধারণ সম্পাদক, সুজন- সুশাসনের জন্য নাগরিক কিশোরগঞ্জ জেলা সহ-সভাপতি ও ঈশাখাঁ ব্লাড ডোনার ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মো. রফিকুল ইসলাম (৪৮) আর নেই। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

শুক্রবার (১৩ মার্চ) সন্ধ্যার দিকে খাগড়াছড়ি জেলার দীঘিনালা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

কিশোরগঞ্জ ব্যবসায়ী সমিতির উদ্যোগে সাজেক ভ্যালি, খাগড়াছড়ি ও রাঙ্গামাটিতে তিন দিন চার রাত্রির বনভোজনে অংশ নিতে তিনি বৃহস্পতিবার (১২ মার্চ) বড় ভাই সুগন্ধা ডিপার্টমেন্টাল স্টোরের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলহাজ্ব মো. এরশাদ উল্লাহ ও অন্যান্য ব্যবসায়ীদের সাথে সেখানে যান।

শুক্রবার (১৩ মার্চ) বিকালে তিনি রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার সাজেক ইউনিয়নের কংলাক পাহাড় থেকে পড়ে হঠাৎ হৃদরোগে আক্রান্ত হলে তাকে জরুরী ভিত্তিতে দীঘিনালা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, দুই কন্যা, আত্মীয়স্বজন ও অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

শনিবার (১৪ মার্চ) বাদ জোহর শহরের ঐতিহাসিক শহীদী মসজিদ প্রাঙ্গণে নামাজে জানাজা শেষে জামিয়া রোড এলাকার পারিবারিক কবরস্থানে লাশ দাফন করা হবে।

মো. রফিকুল ইসলাম নিরাপদ সড়ক চাই কিশোরগঞ্জ জেলা শাখার তিনবারের সাধারণ সম্পাদক, ঈশাখাঁ ব্লাড ডোনার ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, নরসুন্দা মুক্ত স্কাউটের সাবেক সম্পাদকসহ বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে নিবিড়ভাবে সম্পৃক্ত ছিলেন।

তাঁর প্রতিষ্ঠিত ঈশাখাঁ ব্লাড ডোনার ক্লাব কিশোরগঞ্জ জেলায় রক্তদানের ক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে।

একজন সফল সংগঠকের পাশাপাশি একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবেও তিনি কিশোরগঞ্জের ব্যবসায়ী মহলে সুপরিচিত ছিলেন।

তাঁর মৃত্যুতে নিরাপদ সড়ক চাই কিশোরগঞ্জ জেলা কমিটিসহ বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।


আরও পড়ুন