দেশের খবর - July 7, 2020

ডোমারে তিন বীর মুক্তিযোদ্ধা সাবেক সেনা সদস্যের পরিবারকে সেনাবাহিনীর বাড়ি উপহার

জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবর্ষ উপলক্ষে নীলফামারীর ডোমার উপজেলায় দুই মৃত্যুবরণকারী বীর মুক্তিযোদ্ধা সেনা সদস্যের পরিবার ও এক অবসরপ্রাপ্ত বীরমুক্তিযোদ্ধাকে তিনটি পাকা বাড়ি উপহার দিলো বাংলাদেশ সেনাবাহিনী।

সেনা কল্যানের অর্থায়নে রংপুর এরিয়া সদর দপ্তরের তত্ত্বাবধানে খোলাহাটি সেনানিবাসের ১৯ মিডিয়াম রেজিমেন্ট আর্টিলারির সদস্যরা বাড়ি উপহার দেন।

আজ সকাল ১১ টায় প্রথমে উপজেলার চিলাহাটির চৌকিদার মোড় এলাকার সেনাবাহিনীর মৃত সাবেক সৈনিক রফিকুল ইসলাম ও একই এলাকার অবসরপ্রাপ্ত সৈনিক আফিজার রহমানের পরিবারকে নতুন পাকা বাড়ির চাবি হস্তান্তর করা হয়। এরপর দুপুর দুই টার দিকে ডোমার পৌরসভার কলেজ পাড়া এলাকার মৃত সাবেক করপোরাল রশিদুল হকের পরিবারকে চাবি হস্তান্তর করা হয়। ওই সাবেক তিন সদস্যই ১৯৭১ সালের রনাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। বাড়ির চাবি হস্তান্তর করেন, খোলাহাটি সেনানিবাসের ১৯ মিডিয়াম রেজিমেন্ট আর্টিলারির অধিনায়ক লে: কর্ণেল মো: আরিফ হোসেন, লে: নকিব হাসানসহ অন্যান্য সেনা সদস্যরা।

অবসরপ্রাপ্ত সৈনিক আফিজার রহমান জানান, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী সবসময় দেশের সকল সংকটে ঝাঁপিয়ে পড়ে। আমি গর্বিত যে, আমি সেনাবাহিনীর একজন সাবেক সদস্য। আজ আমার বৃদ্ধ বয়সে ভালোবাসার প্রতিষ্ঠান হতে ভালোবাসা হিসেবে একটি বাড়ি পেলাম।

মৃত সাবেক সেনা সদস্য রফিকুল ইসলামের স্ত্রী বিলকিস বানু (৫৫) নতুন ঘর পেয়ে আনন্দে আগাল্পুপ্ত হয়ে জানান, আমার স্বামীর মৃত্যু পরও তার কর্মস্থল হতে নতুন বাড়ি পেলাম। আর কিছু চাওয়ার নাই। সেনাবাহিনীর সদস্যদের জন্য আমার দোয়া রইল।

প্রসঙ্গত, প্রতিটি বাড়িতে দুইটি থাকার ঘর, একটি বাথরুম, একটি টিউবওয়েল, একটি রান্না ঘর রয়েছে। একটি বাড়ি নির্মানে পাঁচ লক্ষ টাকা ব্যয় হয়েছে। সেনাবাহিনীর সদস্যদের পক্ষ হতে রংপুর বিভাগে মোট ১৪ জন মৃত সাবেক সেনা সদস্যের পরিবারকে ৭০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে বাড়ি উপহার দেওয়া হবে।


আরও পড়ুন