রায়হানের মায়ের অনশন ভাঙালেন মেয়র আরিফুল

সিলেটে আমরণ অনশনে বসা পুলিশি নির্যাতনে নিহত রায়হান আহমদের মা সালমা বেগমের অনশন ভাঙিয়েছেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

রোববার বিকেল পৌনে ৫টার দিকে মিনিটে অসুস্থ রায়হানের মায়ের অনশন ভাঙান সিলেট সিটি মেয়র।

মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী রায়হানের মাকে আশ্বস্ত করে বলেন, ‘যতক্ষণ পর্যন্ত দোষীদের গ্রেপ্তার ও বিচার না হবে, ততক্ষণ সিলেটবাসী এ আন্দোলনে রায়হানের পরিবারের পাশে থাকবে।’

এর আগে রোববার সকাল ১১টা থেকে রায়হান হত্যায় জড়িত সব পুলিশ সদস্যের ফাঁসির দাবিতে বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়ির সামনে আমরণ অনশনে বসেন রায়হানের মা ও স্বজনরা।

তখন রায়হানের মা সালমা বেগম উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন, ‘যারা পুলিশ হেফাজতে রয়েছে তাদের কেন এখন পর্যন্ত গ্রেপ্তার করা হচ্ছে না? তাদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে রিমান্ডে নিলে এ ঘটনায় জড়িত সবার নাম বেরিয়ে আসবে। এই ফাঁড়ির ইনচার্জ আকবরকেও দ্রুত গ্রেপ্তার করতে হবে। সব দোষীরা গ্রেপ্তার না হওয়া পর্যন্ত আমাদের কর্মসূচি চলবে। আমার ছেলেকে যেখানে হত্যা করা হয়েছে, প্রয়োজনে আমিও সেখানে মারা যাব।’

গত ১১ অক্টোবর বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে নির্যাতনের শিকার হয়ে মৃত্যুবরণ করেন নগরীর আখালিয়া নেহারিপাড়া এলাকার বাসিন্দা রায়হান আহমদ (৩৩)।

এ ঘটনার পরদিন মামলা দায়ের হলে ওই ফাঁড়ির ইনচার্জ আকবর হোসেন ভুইয়াসহ চারজনকে সাময়িক বরখাস্ত এবং আরও তিনজনকে প্রত্যাহার করা হয়।

এদের মধ্যে কনস্টেবল টিটু চন্দ্র দাস এবং হারুনুর রশীদকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। মূল সন্দেহভাজন আকবর এখনো পলাতক।


আরও পড়ুন