দেশের খবর - November 26, 2020

ধলেশ্বরী তীরের ৩৫ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

ধলেশ্বরী নদীর পশ্চিম তীরে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার বক্তাবলী বাজার সংলগ্ন এলাকায় গড়ে ওঠা অবৈধ ডকইয়ার্ড, ১০টি ইটভাটার অবৈধ স্থাপনা ও বাঁশের পাইলিংসহ ৩৫টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করেছে বিআইডব্লিউটিএ নারায়ণগঞ্জ নদীবন্দর কর্তৃপক্ষ।

বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা থেকে বিকেল ৩টা পর্যন্ত বিআইডব্লিউটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মাহবুব জামিলের নেতৃত্বে অভিযানটি পরিচালিত হয়।

এ সময় কমপক্ষে নদীর ৩ একর জমি দখলমুক্ত করা হয়েছে। এছাড়া নদীর তীর ভরাট করে সেখানে নির্মিত বিপুল পরিমাণ ইট বিনষ্ট করে দেয়া হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিআইডব্লিউটিএ’র নারায়ণগঞ্জ নদীবন্দরের যুগ্ম-পরিচালক শেখ মাসুদ কামাল, সহকারী পরিচালক মোঃ নূর হোসেনসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা। এছাড়া পুলিশ, নৌ পুলিশ ও আনসার সদস্যরাও উপস্থিত ছিলেন।

বিআইডব্লিউটিএ’র নারায়ণগঞ্জ নদীবন্দরের যুগ্ম-পরিচালক শেখ মাসুদ কামাল জানান, হাইকোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী আমাদের উচ্ছেদ অভিযান চলমান রয়েছে। বৃহস্পতিবার একটি এক্সাভেটর দিয়ে বক্তাবলী বাজার সংলগ্ন থেকে ধলেশ্বরী নদীর পশ্চিম তীরে একটি ডকইয়ার্ড ও ১০টি ইটভাটার অবৈধ স্থাপনা ও বাঁশের পাইলিংসহ ৩৫টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।

তিনি আরো জানান, বক্তাবলী এলাকায় ইটভাটার মালিকরা বাঁশের পাইলিং এর মাধ্যমে ভাঙাচোরা ইট ফেলে নদী দখল করে আসছে। যে কারণে আমরা এসকল বাঁশের পাইলিং ভেঙে দিয়েছি, যাতে নদী নিজেই তার জায়গা বৃদ্ধি করে নিতে পারে। নদীর তীর দখল ও ভরাট করে ইটভাটার যেসকল অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করা হয়েছিল, সেগুলোও ভেঙে দেয়া হয়েছে।


আরও পড়ুন