দেশের খবর - October 5, 2021

ভালুকায় ৩০ কোটি টাকা মূল্যের বন ভূমি উদ্ধার

ময়মনসিংহের ভালুকায় জবরদখলকৃত ৩০ কোটি টাকা মূল্যের বন ভূমি উদ্ধার করেছে স্থানীয় বন বিভাগ। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার জামিরদিয়া মৌজার ডুবালিয়াপাড়া এলাকার প্রায় পাঁচ একর জবরদখলকৃত বনভূমি উদ্ধার করা হয়।

ময়মনসিংহ বনবিভাগের ভালুকা রেঞ্জের হবিরবাড়ী বিট অফিস সূত্রে জানা যায়, জামিরদিয়া মৌজায় সিএস ৬৭নং দাগে গেজেট ভুক্ত সংরক্ষিত ও যৌথ জরিপকৃত বনভূমিতে আদালতের সাথে তথ্য গোপনের মাধ্যমে প্রতারণা করে সিএস ৬৭ নং খতিয়ান দেখিয়ে আদালত থেকে নিষেধাজ্ঞা আনে। পরে জনৈক বেলাল ফকিরের নেতৃত্বে ওই বনভূমি জবরদখলের উদ্দেশ্যে সীমানা প্রাচীর নির্মান করা হয়েছিলো। পরে ভালুকা রেঞ্জের হবিরবাড়ি বিট কর্মকর্তা দেওয়ান আলী বাদি হয়ে স্থানীয় বেলাল ফকির, আরিফ স্পিনিং মিলস লিঃ এর এডমিন ম্যানেজার কবির উদ্দির বিপুলসহ মোট ৮জনকে আসামী করে মামলা (নংঃ ৫১/৪৫০) দায়ের করেন।

পরে মঙ্গলবার দুপুরে স্থানীয় প্রশাসনের সহযোগীতায় সহকারী বন সংরক্ষক আবু ইউসুফ ও ভালুকা রেঞ্জ কর্মকর্তা মো. মহিউদ্দীনের নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করে ৩০ কোটি টাকা মূল্যের প্রায় ৫ একর বনভূমি উদ্ধার করা হয়।

ভালুকা রেঞ্জ কর্মকর্তা মো. মহিউদ্দীন বলেন, এজিসি স্পিনিং মিলস লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবদুল গাফফার চৌধুরী বাদি হয়ে আদালতে মামলা করে জামিরদিয়া মৌজায় বেশ কয়েকটি দাগে বনবিভাগের হস্তক্ষেপের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেন, ওই সব নিষেধাজ্ঞাকৃত দাগগুলোর মধ্যে কোথাও সিএস ৬৭দাগের কথা উল্লেখ নেই। স্থানীয় প্রশাসন ও আদালতের সাথে প্রতারনা করে ভূয়া চৌহদ্দি দিয়ে বনভূমি জবরদখলের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে আবদুল গাফফার চৌধুরীর স্থানীয় দালাল বেলাল ফকির। সকলের সহযোগীতায় আজ জবরদখলকৃত ৩০কোটি টাকা মূল্যের বনভূমি উদ্ধার করা হয়।


আরও পড়ুন