ফেসবুকে পরিচয়, বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে গ্রেপ্তার ভুয়া এএসপি

ময়মনসিংহের ফুলপুরে কলেজছাত্রীর বাড়িতে সহকারী পুলিশ পরিদর্শক (এএসপি) পরিচয়ে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে গ্রেপ্তার হয়েছেন এক যুবক। গত সোমবার রাতে তাকে উপজেলার রুপসী গ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

সোলাইমান কবির নামের ওই যুবক শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতী উপজেলার কুচনিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। শেরপুর সরকারি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের এক ছাত্রীর সঙ্গে ফেসবুক পরিচয়ের পর তার বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে যান সোলাইমান। পরে তার কথাবার্তায় সন্দেহ হলে পুলিশে খবর দেয় ওই ছাত্রীর পরিবার।

পুলিশ জানায়, ফেসবুকে পরিচয়ে ওই ছাত্রীকে সোলাইমান কবির ৪০তম বিসিএসের মাধ্যমে পুলিশের এএসপি পদে নিয়োগপ্রাপ্ত বলে জানান। ওই ছাত্রী তাকে তার বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে আসতে বলেন। কথামতো বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে গেলে সেখানে একই পরিচয় দেন সোলাইমান।

তবে তার কথাবার্তায় সন্দেহ হলে পরিবারের সদস্যরা পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে আটক করে নিয়ে যায়। এ সময় ওই যুবকের হেফাজত থাকা পুলিশের বুট, একটি মোবাইল ও মানিব্যাগ জব্দ করা হয়। পরে তার বিরুদ্ধে ফুলপুর থানার মামলা দায়ের করা হয়।

ফুলপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘এএসপি পরিচয়দানকারী যুবক জানায়, তার বাসা উত্তরায়। ঢাকায় তার পাঁচতলা বাড়ি আছে। অথচ সে শেরপুরের বাসিন্দা।’ প্রতারক চক্র ইদানিং ফেসবুকের মাধ্যমে প্রতারণা শুরু করেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক আহ্বান জানান ওসি।


আরও পড়ুন