রাজনীতি - January 24, 2017

জনদুর্ভোগের জন্য ক্ষমা চেয়েছেন : ওবায়দুল কাদের

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ রিপোর্ট,ছাত্রলীগের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের কারণে সৃষ্ট জনদুর্ভোগের জন্য ক্ষমা চেয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।মঙ্গলবার বিকেলে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে তিনি বলেন, ‘রাস্তা বন্ধ করে র‌্যালি করা যাবে না। আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা এ ব্যাপারে কঠোর নির্দেশ দিয়েছেন। কিন্তু আজ গণঅভ্যুত্থান দিবস হওয়ায়, আজকের দিনটা ইতিহাসের তাৎপর্যপূর্ণ হওয়ায় আমরা সমাবেশে আসতে সম্মত হয়েছি। শুধু আজকের দিনটার জন্য, দুর্ভোগের জন্য আমরা সকলের কাছে ক্ষমা চাচ্ছি।’প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসা করে তিনি বলেন, ‘আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনার ভাবনা শুধু নির্বাচনের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয়, তিনি নেক্সট জেনারেশনের উন্নত ভবিষ্যত তৈরিতে চিন্তা করেন।’

কাদের বলেন, ‘গত ৪১ বছরে সবচেয়ে বিচক্ষণ রাজনীতিকের নাম শেখ হাসিনা। সবচেয়ে দক্ষ রাষ্ট্রনায়কের নাম শেখ হাসিনা। সবচেয়ে দক্ষ কূটনীতিবিদের নাম শেখ হাসিনা। তিনি সারা বিশ্বের বিষ্ময়।’

ছাত্রলীগের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘উন্নয়নের রোল মডেল শেখ হাসিনা। ছাত্রলীগকে বলতে চাই শেখ হাসিনার এতো উন্নয়ন, এতো অর্জনকে ম্লান করে দেবে এমন আচরণ পরিহার করতে হবে। দুই একটা খারাপ খবরে নেত্রীর সব উন্নয়ন ম্লান করে দেবো না। আমরা খারাপ খবরের শিরোরাম হবো না।’

‘মেধাবীদের রাজনীতিতে আসতে হবে। না হলে রাজনীতি মেধাহীনদের হাতে চলে যাবে। রাজনীতিতে আসতে হবে যোগ্যদের আসতে হবে। না হলে রাজনীতি অযোগ্যদের হাতে চলে যাবে’, বলেন ওবায়দুল কাদের।অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/ ২৪ -০১-২০১৭ইং  / মো: হাছিব


আরও পড়ুন

1 Comment

  1. I just want to tell you that I am very new to blogging and site-building and honestly enjoyed your web blog. Probably I’m going to bookmark your blog . You certainly have good articles and reviews. Thanks a lot for sharing your website page.

Comments are closed.