দূর পরবাস - December 20, 2020

মিসরে আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস পালিত

মুজিববর্ষের আহ্বান দক্ষ হয়ে বিদেশ যান, স্লোগানকে সামনে রেখে করোনার ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণের কারণে সামাজিক দূরত্ব সংক্রান্ত নীতিমালা অনুসরণ করে নীলনদ আর পিরামিডের দেশ মিশরে পালিত হয়েছে আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস।

বিশ্বের ১৭৩ টি দেশে প্রায় এক কোটি প্রবাসী বাংলাদেশি ভাই-বোনদের কাজের স্বীকৃতি এবং তাদের পরিবারের মর্যাদা ও অধিকার রক্ষায় প্রতিবারের মতো এবার ও মিসরে কর্মরত প্রবাসী ভাই-বোনদের স্বতঃস্ফূর্ত উপস্থিতিতে মিসরস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস ‘আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০’ আড়ম্বরপূর্ণভাবে উদযাপন করেছে।

এবারের আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবসের প্রতিপাদ্য বিষয় ‘মুজিব বর্ষের আহবান, দক্ষ হয়ে বিদেশ যান’ সামনে রেখে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বাংলাদেশি কর্মী এবং বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত মহোদয়সহ অন্যান্য কর্মকর্তা, কর্মচারীদের উপস্থিতিতে বিকাল ০৪:০০ ঘটিকায় পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত পাঠের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের কার্যক্রম শুরু হয়। অভিবাসী দিবস উদযাপন উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী এবং সচিব মহোদয় কতৃক প্রেরিত বাণী পাঠ করে শুনানো হয়।

বাণী পাঠের পরপরই আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবসে এবারে গৃহীত প্রতিপাদ্য বিষয়ের তৎপর্য তুলে ধরে একটি আলোচনা পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত আলোচনায় জাতিসংঘে (খাদ্য ও কৃষি সংস্থা) কর্মরত মিশর প্রবাসী বাংলাদেশি জনাব নাফিজ আহমেদ খান বক্তব্য রাখেন। তার বক্তব্যে কায়রোতে প্রবাসী কর্মীদের কাজের পরিবেশ, বেতন-ভাতা, দেশে প্রেরিত রেমিট্যান্সসহ তাদের যাপিত জীবনের চিত্র ফুটে ওঠে। জনাব নাফিজ মিসরে কর্মরত প্রবাসী কর্মীদের বিভিন্ন সমস্যা তুলে ধরেন এবং তা দূরীকরণে দূতাবাসের সহায়তা প্রদানের অনুরোধ করেন। বক্তব্য শেষে অভিবাসী কর্মীদের উৎসাহিত করার নিমিত্ত ‘আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০’ উদ্যাপনের জন্য প্রবাসীদের পক্ষ হতে দূতাবাসের সকলকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে অনুরোধ জানান প্রবাসী কর্মী এবং তাদের পরিবারের সুরক্ষায় বাংলাদেশ সরকার ঘোষিত উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের বিষয়গুলো যেন শুধুমাত্র কাগজে কলমে সীমাবদ্ধ না থেকে কর্মীদের কল্যাণে বাস্তবায়ন করা হয়।

মিসরে কর্মরত প্রবাসী কর্মীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে দূতাবাসের কাউন্সেলর (রাজনৈতিক) প্রবাসী কর্মী এবং তাদের পরিবারের কল্যাণার্থে বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক গৃহীত বিভিন্ন কার্যক্রমের বিষয়ে উপস্থিত সকলকে অবহিত করেন। বাংলাদেশের অর্থনীতির উন্নয়নে গুরত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখায় আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবসের শুভেচ্ছা জানিয়ে ‘আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০’-এর সমাপনী বক্তব্যে মিসরস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত জনাব মনিরুল ইসলাম তার বক্তব্য বলেন, গত ২০০০ সালে জাতিসংঘ পৃথিবীর সকল অভিবাসীর প্রতি সম্মান ও শ্রদ্ধা জানিয়ে ‘আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস’ পালনের ঘোষণা করার পর অনেক বাধা-বিপত্তি পেরিয়ে ধীরে ধীরে আজ ২০ বছর পর বৃহৎ পরিসরে প্রায় সকল দেশের অংশগ্রহণে দিবসটি স্বতঃস্ফূর্তভাবে পালিত হয়ে আসছে।

এ দিবসটি অভিবাসীদের প্রতি রাষ্ট্রের সম্মান জানানোর এবং তাদের কর্মের স্বীকৃতি জানানোর একটি অনন্য আয়োজন। তিনি মিসরে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশিদের বাংলাদেশ হতে আগত পর্যটক ও ব্যবসায়ীদের দেশীয় খাবারের স্বাদ প্রদানের নিমিত্ত রেস্টুরেন্ট স্থাপনের অনুরোধ জানান। অপরদিকে মিসরের সাথে বাংলাদেশের ব্যবসা সংক্রান্ত বিষয়ে ব্যবসায়ীদের দু-দেশের মধ্যে চলাচল এবং উভয় দেশে পর্যটকদের পারস্পরিক যাতায়াতের বিষয়ে সমন্বয়ের আহবান জানান। এসকল বিষয়ে এবং বাংলাদেশ হতে আগত এবং মিসরে প্রবাসীদের কল্যাণার্থে যেকোন উদ্যোগ গ্রহণ করা হলে দূতাবাস সার্বিক সহায়তা প্রদান করবে বলে তিনি সকলকে আশ্বস্ত করেন।

আলোচনা শেষে ‘আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০’ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে বাংলাদেশি খাবার পরিবেশনের মাধ্যমে অনুষ্ঠান সমাপ্ত করা হয়।


আরও পড়ুন