দূর পরবাস - March 25, 2021

মিসরে গণহত্যা দিবস পালিত

আজ বৃহস্পতিবার (২৫ মার্চ) মিশরের রাজধানী কায়রোতে যথাযথ ভাবগাম্ভীর্যের সঙ্গে ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ স্মরণে ‘গণহত্যা দিবস’ পালন করেছে মিসরস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস।

দিবসটি উপলক্ষে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ও সংক্ষিপ্ত পরিসরে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে দূতাবাসের সকল কর্মকর্তা–কর্মচারী সহ মিসরে বাংলাদেশী প্রবাসীদের উপস্থিতে পবিত্র কোরআন তিলাওয়াতের পর বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের শহীদ সদস্য, বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে জীবন উৎসর্গকারী শহীদদের আত্মার মাগফিরাত, দেশের শান্তি ও অব্যাহত অগ্রগতি কামনা করে দোয়া করা হয় এবং এক মিনিট নীরবতা পালনের মাধ্যমে দিবসের কার্যক্রম শুরু হয়।

দিবসটি স্মরণে ঢাকা থেকে পাঠানো রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাণী পাঠ করে শোনান দুতাবাসের সচিবগন।

এরপর ২৫ মার্চের গণহত্যার উপর একটি প্রামাণ্য ভিডিও চিত্র প্রদর্শন করা হয়। উপস্থিত সকলেই গনহত্যার বীভৎসতা দেখে বর্বরতম এই হত্যাযঞ্জের সাথে জরিত খুনিদের নিন্দা জ্ঞাপন করেন এবং আন্তর্জাতিক বিচারের সপক্ষে জনমত গঠনের অভিমত ব্যক্ত করেন। পরে আলোচনা শুরু হয়, আলোচকরা গণহত্যা দিবসের প্রেক্ষাপট ও তাৎপর্য তুলে ধরেন।

সর্বশেষ সংক্ষিপ্ত আলোচনায় মান্যবর রাষ্ট্রদূত মনিরুল ইসলাম শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট নির্মমভাবে নিহত বঙ্গবন্ধু পরিবারের সব সদস্য এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের। তিনি বলেন, ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ বিশ্ব ইতিহাসে এক কলঙ্কময় অধ্যায়। বাঙালি জাতিকে পৃথিবী থেকে নিশ্চিহ্ন করার অভিপ্রায়ে পাকিস্তানি বর্বর হানাদার বাহিনী সেদিন যে পৈশাচিক নির্যাতন চালিয়েছিল তা বিশ্বের ইতিহাসে বিরল।


আরও পড়ুন