ম্যাজিস্ট্রেট দেখে মাইক্রোবাসে ব্যাগ ফেলে পালালেন যাত্রীরা

যশোর যাওয়ার জন্য মাইক্রোবাসে উঠেন যাত্রীরা। গাড়িতে রাখা ছিল তাদের ব্যাগ। হঠাৎ ম্যাজিস্ট্রেটের গাড়ি। আর গাড়ি দেখেই মাইক্রোবাসে ব্যাগ রেখে পালালেন যাত্রীরা।

বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ শহরের মেইন বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এমন ঘটনা ঘটেছে।

এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন কালীগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ভূপালী সরকার।

ভ্রাম্যমাণ আদালত মাইক্রোবাসের চালককে এক হাজার টাকা জরিমানা করেন।

এর আগে যাত্রী নিয়ে যশোরের উদ্দেশে যাওয়ার সময় একটি প্রাইভেটকার আটকে দেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) ভূপালী সরকার। প্রাইভেটকারের চালককেও করেন এক হাজার টাকা জরিমানা।

এ সময় প্রাইভেটকারে থাকা যাত্রীদের নেমে যাওয়ার নির্দেশ দেন তিনি।

এ ছাড়া বুধবার বিকালে শহরের বাগাট ঘোষ মিষ্টান্ন ভাণ্ডার ও ঘোষ সুইটস নামে দুটি হোটেলকে দুই হাজার টাকা ও বাজাজ মোটরসাইকেল শোরুমের মালিককে এক হাজার টাকা জরিমানা করেন তিনি।

কালীগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ভূপালী সরকার জানান, ঝিনাইদহ জেলায় করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সাত দিনের বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। বিকাল ৫টার পর সব জরুরি সেবা ছাড়া সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এ নির্দেশনা না মানায় মাইক্রোবাসচালক, প্রাইভেটকারচালক ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিককে জরিমানা করা হয়েছে।


আরও পড়ুন