মেয়ে আইরা তেহরীম খানকে নিয়ে প্রায়ই ঘুরতে বের হন রফিয়াত রশিদ মিথিলা। কিছুদিন আগে মেয়েকে নিয়ে ঘুরতে যান ব্যাংককে। সে সময়ের কিছু ছবিও মিথিলা প্রকাশ করেছেন তার ফেসবুকে। গত শুক্রবারই মেয়ে আইরার সঙ্গে ব্যাংককের অলিগলিতে ঘুরে বেড়ানোর একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়। সেখানে দেখা মেলেনি স্বামী সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের।

অথচ দিন সাতেক আগেই একসঙ্গে ফ্রেমবন্দি হয়েছিল গোটা পরিবার। সবাই একসঙ্গে গিয়েছিলেন সিনেমা দেখতে। কিন্তু শনিবার সৃজিত ও মিথিলার একটি পোস্ট ঘিরে তৈরি হয়েছে নতুন জল্পনা। শোবিজে বইছে ‘সংসার ভাঙন’র গুঞ্জন।

সৃজিত গতকাল তার ইনস্টাগ্রামে একটি ছবি পোস্ট করেন। যেখানে দেখা যায়, সমুদ্রের পাড়ে একা দাঁড়িয়ে আছেন তিনি। আর ক্যাপশনে জোন বায়েজের লেখা ফেয়ারওয়েল অ্যাঞ্জেলিনা গানের কয়েকটি লাইন যোগ করেছেন। গানের কথাগুলোর অর্থ : ‘এখানে রাগের দরকার নেই, এখানে দোষারোপের প্রয়োজন নেই। এখানে কিছু প্রমাণ করার নেই। সব কিছু একই রয়েছে, সৈকতে শুধুমাত্র একটা গাছ দাঁড়িয়ে রয়েছে…একা। বিদায় অ্যাঞ্জেলিনা। এবার বিদায় নিতে হবে।’

গানের অর্থ দেখেই বোঝা যাচ্ছে, গানটি বিচ্ছেদের ও দুঃখের। হঠাৎ এমন গানের কথা কেন পোস্ট করলেন জনপ্রিয় এই নির্মাতা-তা নিয়ে নেটদুনিয়ায় শুরু হয়েছে নানা কথা!

প্রায় একই সময়ে নিজের কিছু ছবি পোস্ট করেন মিথিলাও। ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, ‘কীভাবে তুমি জানো যে সেই প্রেম সত্যি? কীভাবে জানো সেই প্রেম ন্যায্য? সেই প্রেম আর নেই এটার জানার আগে সেই উত্তর খুঁজতে কতদূর তুমি যেতে পারো?’

এবার তাদের একই সময়ে এই দুই বিচ্ছেদের পোস্ট ঘিরে তৈরি হয়েছে নানা জল্পনা-কল্পনা। কেউ কেউ তো বলছেন, সংসার জীবনে ভালো নেই তারা! উত্তর পাওয়া এখন সময়ের অপেক্ষা, কেন এমন পোস্ট দিলেন তারা।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে ওপার বাংলার নির্মাতা সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের সঙ্গে সংসার জীবন শুরু করেন মিথিলা। মেয়ে আইরাকে নিয়ে ভারত ও বাংলাদেশ, দুই দেশেই থাকেন মিথিলা। মেয়ে আইরাকে নিয়ে প্রায়শই আবেগঘন পোস্ট করতে দেখা যায় সৃজিতকে। কয়েকমাস আগে মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে একসঙ্গে ঘুরতেও গিয়েছিলেন তারা।