করিমগঞ্জে ট্রাকচাপায় নিহত ১

কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জে লরি ট্রাকের সাথে সিএনজিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে সেলিম মিয়া (৩২) নামে সিএনজির এক আরোহী নিহত এবং চালকসহ চার আরোহী আহত হয়েছেন। বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকাল ৭টার দিকে কিশোরগঞ্জ-করিমগঞ্জ সড়কে করিমগঞ্জ উপজেলার জাফরাবাদ ইউনিয়নের জগৎশাহ বাড়ী মোড়ে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।

আহতরা হচ্ছেন, সিএনজিচালক মো. মামুন (২৪) এবং তিন আরোহী বাচ্চু মিয়া (৭০), ইয়াছিন (১৯) ও মোজাম্মেল (৩৭)। অন্যদিকে নিহত সেলিম মিয়া করিমগঞ্জ উপজেলার সুতারপাড়া ইউনিয়নের চামটা ঘাট এলাকার কাশেক মিয়ার ছেলে।

এছাড়া আহতদের মধ্যে সিএনজিচালক মো. মামুন করিমগঞ্জ উপজেলার নিয়ামতপুর ইউনিয়নের দেওপুর গ্রামের মৃত ফজলু মিয়ার ছেলে, বাচ্চু মিয়া পার্শ্বর্তী তাড়াইল উপজেলার কাজলা গ্রামের প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হামিদের ছেলে, ইয়াছিন করিমগঞ্জ উপজেলার জয়কা ইউনিয়নের বালিয়াবাড়ির হাফিজ উদ্দিনের ছেলে এবং মোজাম্মেল কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের শোলাকিয়া গাছ বাজার এলাকার কাঞ্চন মিয়ার ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকালে লরি ট্রাকটি কিশোরগঞ্জ থেকে করিমগঞ্জের চামড়া বন্দরের দিকে যাচ্ছিলো। অন্যদিকে পাঁচজন আরোহী নিয়ে সিএনজিচালিত অটোরিকশাটি ন্যামতপুর থেকে কিশোরগঞ্জের দিকে যাচ্ছিলো। ঘন কুয়াশার মধ্যে পথে করিমগঞ্জ উপজেলার জাফরাবাদ ইউনিয়নের জগৎশাহ বাড়ী মোড়ে লরি ট্রাকটি সিএনজিচালিত অটোরিকশাটিকে চাপা দিলে সিএনজিটি দুমড়ে মুচড়ে যায়। এতে চালকসহ সিএনজির পাঁচ যাত্রীর সবাই কমবেশি আহত হন। দ্রুত তাদেরকে উদ্ধার করে পার্শ্ববর্তী প্রেসিডেন্ট আবদুল হামিদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া যায়।

সেখানে চালকসহ পাঁচজনকে ভর্তি করার পর আশঙ্কাজনক অবস্থায় সেলিম মিয়াকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেলিম মিয়ার মৃত্যু হয়।

করিমগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জয়নাল আবেদীন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনার পর ট্রাকটিকে আটক করা হলেও চালক পালিয়ে গেছে। এ ব্যাপারে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।


আরও পড়ুন