অষ্টগ্রাম দু’ই পক্ষের সংঘর্ষে শিশু নারী-পুরুষ সহ আহত ৭০, ১০টি বসত ঘরে আগুন

অষ্টগ্রাম (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি ।। অষ্টগ্রাম উপজেলার আদমপুর ইউনিয়নের আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে অগ্নিসংযোগ ও মারামারিতে শিশু, নারী, পুরুষ সহ ৭০ জন আহত হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গিয়াছে। বর্তমানে এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

পুলিশ, এলাকাবাসী ও আহতদের সূত্রে জানা যায় মঙ্গলবার ১০ টায় উপজেলা আদমপুর ইউনিয়নের নুরপুর উলুকান্দা গ্রামে প্রবাসী জয়নাল গ্র“প ও একই এলাকার আফার উদ্দিন এর লোকজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে আফতার উদ্দিনের লোকজন জয়নাল গ্রুপের লোকজনকে মারধর করে। পরে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘষ বাঁধলে এতে শিশু, নারী পুরুষ সহ প্রায় ৭০ জন আহত হয়েছে। বর্তমানে এলাকায় থমথমে বিরাজ করছে এবং পুলিশ মোতায়ন রয়েছে বলে জানা গেছে। আহত রহিমা বেগম (৫৫) জানান সকাল ১০ টার দিকে এলাকাতে মারামারি চললে আমি আমার ঘরে ভয়ে চলে যায়। কিন্তু ময়ধর, ফয়েজ উদ্দিন, জিন্নত আলী, সাথিক, কাওসার ও মাজুর নেতৃত্বে আমার ঘরে পেট্রোল দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। আমি ঘর থেকে বের হওয়ার চেষ্টা করলে আমাকে প্রচন্ড মারধর করে। আহতদের মধ্যে গুরুতর অবস্থায় পিপলু মিয়া (২০) ও শিশু শ্রাবন (৯) সহ বেশ কয়েকজন কিশোরগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রেরণ হয়েছে বলে জানা গেছে। আহতদের মধ্যে রহিমা বেগম (৫৫), আলম (২৩), মজলু মিয়া (২০), শাহজাহান (২০), শিশু মেহেদী (১০), সোহাগ মিয়া (২৩), নয়নতারা (২৫) জহিরুল ইসলাম (২০), নাসির উদ্দিন (২০), মাইন উদ্দিন (৩০), সুমি আক্তার (২৬), মনা মিয়া (৫৫), কবির হোসেন (৩০), ইমাম উদ্দিন (৩৫), রুপসী আক্তার (৫০), খুর্শেদা বেগমর্ (৪০) সহ উভয় পক্ষের প্রায় অর্ধ শতাধিক অষ্টগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছে বলে জানা যায় এবং বাকিদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা বলে জানা যায়।

এ ব্যাপারে অষ্টগ্রাম থানার অফিসার ইনচার্জ কামরুল ইসলাম মোল্লা জানান, ঘটনা শুনার সাথে সাথে পুলিশের ফোর্স পাঠানো হয়েছে এবং বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

এই ব্যাপারে অষ্টগ্রাম হাসপাতালে মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠের ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি তথ্যের জন্য গেলে কর্তব্যরত ডাঃ কাউছার হামিদ তথ্য দিতে অপরাগতা প্রকাশ করেন।

 

মুক্তিযোদ্ধার কণ্ঠ ডটকম/৩১-১০-২০১৭ইং/ অর্থ

Comments

comments

You might also like More from author

Comments are closed.

মুক্তিযোদ্ধার কন্ঠ